Jump to content

ফরেক্স নিউজ

  • entries
    471
  • comments
    10
  • views
    2,997

Contributors to this blog

  • মার্কেট আপডেট 471

About this blog

ফরেক্স ট্রেডিং সংক্রান্ত সব নিউজ, অ্যানালাইসিস এবং মার্কেট আপডেট পাবেন এখানেই।

Entries in this blog

১.২৩০০ প্রাইসের নিচে USDCAD পেয়ারের ডাউনট্রেন্ড শক্তিশালী হতে পারে

USDCAD পেয়ারটি ১.২৪৯০ প্রাইস থেকে নিচে নামতে শুরু করেছিল।  বর্তমানে পেয়ারের প্রাইস কমে ১.২৩০০ এর কাছাকাছি অবস্থান করছে। RSI ইনডিকেটরের ট্রেন্ড লাইন ৫০ লেভেলে সামান্য উপরে অবস্থান করছে।  যা পেয়ারের সাইডওয়ে নির্দেশ করছে।  MACD ইনডিকেটরে পেয়ারটি জিরো পয়েন্টের উপরে অবস্থান করছে।  এটাও পেয়ারের প্রাইস কমার সম্ভাবনার ইঙ্গিত দিচ্ছে। তবে ২০ এবং ৪০ দিনের সিম্পল মুভিং অ্যাভারেজ পেয়ারের বুলিশ অবস্থানের ইঙ্গিত দিচ্ছে।  পেয়ারটি গত কয়েকদিন ১.২৩০০ প্রাইসকে কেন্দ্র করে মুভমেন্ট করছে।  সেক্ষেত্রে USDCAD ১.২

USDJPY সাপ্তাহিক ফরেকাস্ট ( ১৯ – ২৩ জুলাই, ২০২১)

USDJPY পেয়ারের সাপ্তাহিক চার্টের তাকালে দেখা যাচ্ছে, গত সপ্তাহে পেয়ারটি ১১০.১০ প্রাইসে ওপেন হয়ে ১১০.০৬ প্রাইসে ক্লোজ হয়েছে।  সপ্তাহজুড়ে পেয়ারের মুভমেন্ট ব্যাপক থাকলেও শেষের দিকে সীমিত হয়ে পড়েছিল। পেয়ারটি তৃতীয় সপ্তাহের মতো ডাউনট্রেন্ড অব্যাহত রেখেছে। ব্যাংক অব জাপান এবং ফেডারেল রিজার্ভ তাদের মিটিংয়ে কোন পরিবর্তন করেনি।  জাপানের কেন্দ্রীয় ব্যাংক ইন্টারেস্ট রেট ০.১০%-এ অপরিবর্তনীয় রেখেছিল।  দেশটির প্রস্তাবিত প্রবৃদ্ধি ২০২১ সালে ৪% থেকে কমিয়ে ১.৮% এনেছে।  এদিকে ফেডারেল রিজার্ভও একই ধাচে হাটছে

কানাডিয়ান জব রিপোর্টের আলোকে কানাডিয়ান ডলারের মুভমেন্ট যেভাবে দেখা হচ্ছে

বৃহস্পতিবারের মতো আজকের সেশনে USDCAD পেয়ারের মুভমেন্টে তেমন চাঞ্চল্য দেখা যাচ্ছে না। কারণ মার্কিন ও কানাডিয়ান উভয় দেশের সেপ্টেম্বরের জব রিপোর্টের অপেক্ষায় কারেন্সিগুলো। কানাডিয়ান ডলার বেশ কিছু দিনের ধারা অব্যাহত রেখে মার্কিন ডলারকে বিয়ারিশ চাপে রেখেছে। এরই ধারাবাহিকতায় পেয়ারটি চার সপ্তাহের নিন্ম প্রাইসে পৌঁছেছে। তবে কানাডিয়ান ডলারের প্রাইস বৃদ্ধির পেছনে গুরুত্বপূর্ণ ভুমিকা পালন করছে ক্রুড তেলের প্রাইস। সাধারনত কানাডিয়ান জিডিপিতে ক্রুড তেলের ভূমিকা অপরিসীম। ক্রুড তেলের সাম্প্রতিক

মিশ্র ব্রিটিশ ডাটা GBPEUR পেয়ারের প্রাইস কমাতে সহায়তা করছে

GBPEUR পেয়ারের এক্সচেঞ্জ নিন্মগামী অবস্থানে রয়েছে। কিছু মিশ্র ব্রিটিশ ডাটা ব্যাংক অব ইংল্যান্ডের ইন্টারেস্ট রেট বৃদ্ধি সম্পর্কে বিনিয়োগকারীদের মাঝে সন্দেহ তৈরি করছে। আর্টিকেল লেখার সময় ক্রোস কারেন্সি ১.১৮৬২ প্রাইসে অবস্থান করছে। সপ্তাহের শেষের দিন ব্রিটিশ পাউন্ডের বিপরীতে ইউরো শক্তিশালী অবস্থানে আসার অন্যতম কারণ হিসেবে দেখা হচ্ছে রিটেইল সেলস রিপোর্ট। ব্রিটিশ রিটেইল সেলস পঞ্চম মাসের মতো আপট্রেন্ডে থাকলেও সেপ্টেম্বরে কমে ০.২% এসেছে। যা প্রত্যাশিত ০.৫% এর নিচে ছিল। অক্টোবরে মেনুফেকচ

USDJPY প্রাইস অ্যানালাইসিস

সপ্তাহের শেষের দিন USDJPY পেয়ার পূর্বের দিনের মতো ডাউনট্রেন্ড অব্যাহত রাখতে চলেছে। আজকের সেশনে পেয়ারটি ১১১.৫০ প্রাইসে ওপেন হলেও বর্তমানে ১১১.০০ প্রাইসের কাছাকাছি মুভমেন্ট করছে।  USDJPY পেয়ারের চার্টে লক্ষ করে দেখা যাচ্ছে, ২২ সেপ্টেম্বর পেয়ারটি বছরের সর্বোচ্চে ১১২.০৮ স্পর্শ করেছিল। গতকাল থেকে পেয়ারের বুল সংকুচিত হয়ে আসছে এবং পেয়ারটি ১১১.২০ সাপোর্ট অতিক্রম করে ১১১.০০ এর দিকে যাচ্ছে। USDJPY ডেইলি চার্ট পরবর্তী সাপোর্ট হতে পারে মঙ্গলবারের নিন্ম প্রাইস ১১০.৯৩। MACD ইনডিকেটর অনুযা

মার্কিন রিটেইল সেলস রিপোর্টের পূর্বে ১.১৬০০ প্রাইসের উপরে মুভমেন্ট করছে EURUSD

নিরাপদ কারেন্সি হিসেবে পরিচিত মার্কিন ডলারের রিবাউন্ড কিছুটা কমার ফলে EURUSD পেয়ারের প্রাইস বৃদ্ধি পেয়ে ১.১৬০০ এর উপরে অবস্থান করছে। বৈশ্বিক অর্থনীতিতে ক্রমবর্ধমান মুদ্রাস্ফীতির ঝুঁকি অর্থনীতিবিদদের ভাবিয়ে তুলছে। এদিকে ইউরোপিয়ান কেন্দ্রীয় ব্যাংকের প্রেসিডেন্ট ক্রিস্টিয়ান লেগার্ডের সাম্প্রতিক মন্তব্যগুলো ইউরোর উত্থানে সহায়তা করে, বিশেষ করে যখন তিনি বলেছিলেন, ইউরোজোন অঞ্চলের অর্থনীতির পুর্নবাসন পর্যায় ক্রমবর্ধমান অগ্রসর হচ্ছে। এর ফলে মেজর কারেন্সি পেয়ার ১৫ মাসের নিন্ম প্রাইস ১.১৫

এভারগ্র্যান্ড প্রশ্নের দীর্ঘায়িত ডলারকে সপ্তাহের নিন্ম প্রাইস থেকে রিকভারে সহায়তা করছে

বৃহস্পতিবার মার্কিন ডলারের প্রাইস এতো বেশি কমেছে, যা গত একমাসের মধ্যে একদিনে সর্বোচ্চ। আজ শুক্রবার ডলারের প্রাইস পুনরায় বৃদ্ধির চেষ্টা করছে। চায়না এভারগ্রান্ড গ্রুপের ভাগ্য নিয়ে প্রশ্নগুলো ডলারের প্রাইস বৃদ্ধিতে সহয়তা করছে। দেউলিয়া হওয়ার পথে চীনের দ্বিতীয় বৃহত্তম ভবন নির্মাতা প্রতিষ্ঠান এভারগ্রান্ডের। এর নেতিবাচক প্রভাব পড়ছে পুজিবাজারে। বেইজিং বৃহস্পতিবার আর্থিক ব্যবস্থায় নতুন ধারা প্রয়োগ করার কথা বলায় নিরাপদ কারেন্সি হিসেবে ডলারের প্রাইস কমেছিল। এভারগ্র্যান্ডের দেউলিয়ার বিষয় ম

EURJPY প্রাইস অ্যানালাইসিস

তৃতীয় দিনের মতো EURJPY পেয়ার ডাউনট্রেন্ড অব্যাহত রেখেছিল।  তবে আজকের সেশনে  পেয়ারের প্রাইস বৃদ্ধি পাচ্ছে। প্রত্যাশা করা হচ্ছে, পেয়ারটি ১২৯.৫০ প্রাইসের নিচে আসলে ডাউনট্রেন্ড শক্তিশালী হতে পারে।   পেয়ারটি ১২৯.৫০ অতিক্রমে সক্ষম হলে ১২৮.৫৪ প্রাইসে যেতে পারে।  ২০০ দিনের মুভিং অ্যাভারেজ অনুযায়ী ১২৮.৩০ সাপোর্ট হিসেবে কাজ করতে পারে। EURJPY ডেইলি চার্ট XM ব্রোকারে জুলাই মাসে ডিপোজিটে ৫০% বোনাস

জার্মান রাজনৈতিক উত্তেজনায় EURGBP পেয়ারের বিয়ারিশ শক্তিশালী হচ্ছে

আসন্ন জার্মান সাধারণ নির্বাচনের পূর্বে EURGBP পেয়ারের প্রাইস কমতে শুরু করেছে। দ্বিতীয় দিনের মতো পাউন্ডের বিপরীতে ইউরো দুর্বল অবস্থানে রয়েছে। আর্টিকেল লেখার সময় EURGBP এক্সচেঞ্জ ০.৮৫১০ প্রাইসের কাছাকাছি মুভমেন্ট করছে। জার্মান সাধারণ নির্বাচনকে কেন্দ্র করে দেশটির মধ্যে রাজনৈতিক উত্তেজনা বৃদ্ধি পাচ্ছে। যা ইউরোর প্রাইসকে প্রভাবিত করছে। ২৬ সেপ্টেম্বরের নির্বাচনে অ্যাঙ্গেল মার্কেলের দল ক্ষমতা থেকে অপসরণ হলে টানা ১৬ বছর পর ক্ষমতা থেকে অপসরণ হবে। নির্বাচনের পরবর্তীতে ইউরোপিয়ান ইউনিয়ন এ

১.১৮৮৭ প্রাইসের উপরে আপট্রেন্ড বৃদ্ধির সম্ভাবনা রয়েছে EURUSD

EURUSD পেয়ার সর্বনিন্ম ১.১৭৮০ প্রাইসে গেলেও বর্তমানে পেয়ারের প্রাইস কিছুটা বৃদ্ধি পাচ্ছে।  ২০২০ সালের নভেম্বরেও ১.১৭৮০ সাপোর্ট হিসেবে কাজ করেছিল।  সেক্ষেত্রে ২০২০-২০২১ সালের সাপোর্ট হিসেবে বিবেচনা করা যেতে পারে ১.১৭৮০। কিছু বিশেষজ্ঞদের মতে, পেয়ারটি ১.১৮৮৭ প্রাইসের উপরে আসলে আপট্রেন্ড শক্তিশালী হতে পারে।  যদিও বর্তমানে পেয়ারটি ১.১৮৬০ প্রাইসের কাছাকাছি অবস্থান করছে। EURUSD ১.১৮৮৭ প্রাইস অতিক্রমে সক্ষম হলে ১.১৯৭০ প্রাইসে যেতে পারে।  ২০০ দিনের SMA অনুযায়ী ১.২০০০ রেজিস্ট্যান্স হিসেবে কাজ কর

NFP প্রত্যাশার নিচে আসলে ১.১৯৭৬/২০০০ প্রাইসে যেতে পারে EURUSD- ক্রেডিট সুইস

মার্কিন NFP বা ননফার্ম পেরোলস রিপোর্টের পূর্বে EURUSD পেয়ারের প্রাইস কমে গত বছরের মার্চ মাসের নিন্ম প্রাইস ১.১৮৬২ এর নিচে অবস্থান করছে।  পেয়ারের ডাউনট্রেন্ড আরও বৃদ্ধি পেলে পেয়ারটি ২০২০ সালের পরবর্তীতে সর্বোচ্চ পতন হতে পারে। EURUSD ১.১৮৩৫ প্রাইসের কাছাকাছি অবস্থান করছে।  পেয়ারের বর্তমান সাপোর্ট ১.১৮২৪ এবং পরবর্তী সাপোর্ট হতে পারে ১.১৭৬৭। ক্রেডিট সুইস অ্যানালাইসিস্টদের মতে, মার্কিন NFP রিপোর্ট প্রত্যাশার নিচে আসলে EURUSD পেয়ারের প্রাইস বৃদ্ধি পেয়ে ১.১৯৭৬/২০০০-তে যেতে পারে।  প্রত্যাশ

XM ব্রোকারে আগস্ট মাসে $৫ - $৪০০ পর্যন্ত নিশ্চিত প্রাইজ জেতার সুযোগ

XM ব্রোকার ২ থেকে ৩১ আগস্ট ২০২১ পর্যন্ত প্রমোশনের আয়োজন করেছে।  বাংলাদেশ এক্সক্লুসিভ সকলেই জিতবে ৫ USD থেকে ৪০০ USD (বা মুদ্রার সমতুল্য) পর্যন্ত ব্যালেন্স।  প্রমোশনে অংশগ্রহণ করার জন্য আপনাকে ২ থেকে ৩১ আগস্ট ২০২১ এর  মধ্যে রেজিস্টেশন করতে হবে। সকল কোয়ালিফাইড রেজিস্টেশনকারী পুরস্কার জিতবে দুটি লেভেলে। পুরস্কার লেভেল ১ আপনার ট্রেডিং অ্যাকাউন্ডে ৫ USD থেকে ২০০ USD পর্যন্ত ( বা মুদ্রার সমতুল্য) বোনাস ব্যালেন্স জিতবেন পুরস্কার লেভেল ২ আপনার ট্রেডিং অ্যাকাউন্ডে ৫ USD থেকে ৪০০ USD প

GOLD সাপ্তাহিক ফরেকাস্ট ( ০৪ – ০৮ অক্টোবর, ২০২১)

বেশ কিছু সপ্তাহ গোল্ডের প্রাইস কমলেও গত সপ্তাহে বৃদ্ধি পেয়েছিল। বিশ্বক্যাপী জ্বালানি সংকট চীনের মুদ্রা, ব্রিটিশ পাউন্ড ও ইউরোজোনের ইউরোকে বিভিন্নভাবে প্রভাবিত করছে। নিরাপদ কারেন্সি হিসেবে মার্কিন ডলারের চাহিদা বৃদ্ধি পাচ্ছে। যা গোল্ড মার্কেটে নেতিবাচক প্রভাব ফেলছে। গত সপ্তাহের প্রথমদিকে গোল্ডের প্রাইস কমে সাত সপ্তাহের নিন্ম ১৭২২ প্রাইসে গেলেও সপ্তাহের শেষের দুদিন বৃদ্ধির চেষ্টা করেছিল। এর ফলে পেয়ারটি হাকিশ অবস্থানে ক্লোজ হয়েছিল। নভেম্বরে ফেড চেয়ারম্যান জেরেমি পাওয়েলের টেপারিং কমানোর

প্রাইস কমার চেষ্টায় USDJPY- ক্রেডিট সুইস

USDJPY পেয়ারের প্রাইস বৃদ্ধি পেয়ে ২০১৮ সালের সর্বোচ্চ প্রাইস ১১৪.৫৫ গেলেও আজকের সেশনে বিয়ারিশে আসার চেষ্টা করছে। পেয়ারের ক্ষেত্রে ২০১৯ সালের সর্বোচ্চ প্রাইস ১১২.৯০ বর্তমান সাপোর্ট হিসেবে কাজ করতে পারে। পরবর্তী সাপোর্ট হতে পারে ১১৩.৯৯। অপরদিকে পেয়ারের বর্তমান রেজিস্ট্যান্স আজকের সর্বোচ্চ প্রাইস ১১৪.৩৬। পেয়ারটি ১১৪.৩৬ রেজিস্ট্যান্স অতিক্রমে সক্ষম হলে ১১৪.৪৫ প্রাইসে যেতে পারে। আপট্রেন্ড অব্যাহত থাকলে ২০১৭ সালের নভেম্বরের সর্বোচ্চ প্রাইস ১১৪.৭৩-তে যেতে পারে। সবচেয়ে কম স্প্রে

প্রাইস অ্যানালাইসিস EURUSD

EURUSD পেয়ারের প্রাইস কমে বর্তমানে ১.১৮৮০ এর কাছাকাছি অবস্থান করছে।  প্রত্যাশা করা হচ্ছে, পেয়ারটি চলতি মাসের নিন্ম প্রাইস ১.১৮৫০ পুনরায় রিটেস্ট করতে পারে। RSI এবং MACD ইনডিকেটর অনুযায়ী পেয়ারের প্রাইস কমার সম্ভাবনা রয়েছে।  অপরদিকে ২০০ দিনের সিম্পল মুভিং অ্যাভারেজ অনুযায়ী পেয়ারটি ১.১৯৯৫ প্রাইসের উপরে আসলে আপট্রেন্ড শক্তিশালী হতে পারে। EURUSD ডেইলি চার্ট

ক্রেডিট সুইস যেভাবে দেখছে EURUSD পেয়ারের সাপোর্ট-রেজিস্ট্যান্স

EURUSD পেয়ারের প্রাইস বেশ কিছুদিন কমলেও আজকের সেশনে বৃদ্ধির চেষ্টা করছে। ক্রেডিট সুইস অ্যানালাইসিস্ট টিম পেয়ারের কিছু সম্ভাব্য সাপোর্ট ও রেজিস্ট্যান্স উল্লেখ করেছে। পেয়ারটি ১.১৭৩৩ প্রাইসের কাছাকাছি মুভমেন্ট করছে।  পেয়ারের বর্তমান সাপোর্ট হিসেবে দেখা হচ্ছে ১.১৭০০।  পরবর্তী সাপোর্ট হতে পারে আগস্টের নিন্ম প্রাইস ১.১৬৬৩। ক্রেডিট সুইস অ্যানালাইসিস্ট টিম পেয়ারের সম্ভাব্য আরও কিছু সাপোর্টের মধ্যে রেখেছে ১.১৬১২ ও ১.১৪৯৫। অপরদিকে পেয়ারের বর্তমান রেজিস্ট্যান্স ১.১৭৫০। ১৩ ও ৫৫ দিনের অ্যাভ

সপ্তাহের সর্বোচ্চ প্রাইসে USDCAD

গত সপ্তাহে USDCAD পেয়ারের প্রাইস কমলেও চলতি সপ্তাহের শুরু থেকে বৃদ্ধি পাচ্ছে। বর্তমানে পেয়ারটি সপ্তাহের সর্বোচ্চ প্রাইস ১.২৩৮৫-তে অবস্থান করছে। কানাডিয়ান ডলারের প্রাইস কমার পেছনে তেলের প্রাইস কাজ করছে।  ওয়েস্ট টেক্সাস ইন্টারমিডিয়েটের ব্যারেল ১.৬৫% হ্রাস পেয়ে প্রতি ব্যারেল ৭২.৩৫ ডলারের কাছাকাছি অবস্থান করছে।  যা কানাডিয়ান ডলারের প্রাইস কমামে সহায়তা করছে। অপরদিকে মার্কিন ডলারের প্রাইস ০.২৩% বৃদ্ধি পেয়ে ২১.১০ এর কাছাকাছি অবস্থান করছে।  বিনিয়োগকারীদের বর্তমান নজর থাকবে মার্কিন হাউজ

পঞ্চম দিন মার্কিন ডলারের প্রাইস কমছে

যুক্তরাষ্ট্রের কেন্দ্রীয় ব্যাংক ফেডারেল রিজার্ভের চেয়ারম্যান জেরেমি পাওয়েলের ডোভিশ মন্তব্য মার্কিন ডলারের প্রাইস কমাতে সহায়তা করছে। ডলারের প্রাইস পঞ্চম দিনের মতো কমছে, যা কারেন্সিকে মাসের তলানিতে নিয়ে এসেছে।  বর্তমানে ডলারের প্রাইস কমে ৯১.৮৫ এর কাছাকাছি অবস্থান করছে।  জুন মাসের ২৯ তারিখ ডলারকে বর্তমান অবস্থানে দেখা গিয়েছিল। জেরেমি পাওয়েল তার আলোচনায় ইন্টারেস্ট রেট বৃদ্ধির অনিশ্চয়তা এবং জব মার্কেটের অগ্রগতি নিয়ে নেতিবাচক আলোচনা করেছেন।  দেশটিতে প্রবৃদ্ধি হ্রাস এবং ডেল্টা ভাইরাস

GOLD সাপোর্ট-রেজিস্ট্যান্স

বেশ কিছুদিন গোল্ড নির্দিষ্ট রেঞ্জের মধ্যে মুভমেন্ট করছে। চলতি সপ্তাহে তৃতীয় দিনের মতো গোল্ডের প্রাইস কমছে। বর্তমানে গোল্ড দিনের সর্বনিন্ম প্রাইস ১৭৪৫ এর কাছাকাছি অবস্থান করছে। সাপ্তাহিক চার্টে ফিবোনাসি রিট্রেসমেন্ট ৬১.৮% অনুযায়ী পেয়ারের সাপোর্ট হতে পারে ১৭৩৮।  গোল্ডের বিয়ারিশ অবস্থান শক্তিশালী হলে সেক্ষেত্রে ১৭৩৩ সাপোর্ট হতে পারে। গোল্ডের আপট্রেন্ড শক্তিশালী হওয়ার ক্ষেত্রে ডেইলি চার্টে ফিবোনাসি রিট্রেসমেন্ট ৬১.৮% অনুযায়ী ১৭৫৪ রেজিস্ট্যান্সে বাধা পেতে পারে। গোল্ডের পরবর্তী বাধা-

GOLD সাপ্তাহিক ফরেকাস্ট ( ১১ – ১৫ অক্টোবর, ২০২১)

গত সপ্তাহে মার্কিন জব রিপোর্ট প্রত্যাশার নিচে আসায় গোল্ড বুলিশে আসার সম্ভাবনা থাকলেও পরবর্তীতে বিয়ারিশে এসেছিল। ফেডারেল রিজার্ভের সেন্টিমেন্ট ও মার্কিন রাজনৈতিক উত্তেজনা গত সপ্তাহে মার্কিন ডলারের শক্তিশালী অবস্থান ধরে রাখতে সহায়তা করেছিল। ফেডারেল রিজার্ভের সেন্টিমেন্ট ও মার্কিন ট্রেজারি রিপোর্টকে কেন্দ্র করে গত সপ্তাহের প্রথমার্ধে গোল্ড বিয়ারিশে ছিল। এ সপ্তাহে যে বিষয়গুলো গোল্ডকে প্রভাবিত করতে পারে বিনিয়োগকারীদের বর্তমান নজর সেপ্টেম্বরের মেনুফেকচারিং PMI রিপোর্টের দিকে। প্রত

USDCAD পেয়ারের ক্ষেত্রে ১.২৫৩০ রেজিস্ট্যান্স কাজ করছে

মঙ্গল ও বুধবার USDCAD পেয়ারের প্রাইস কমলেও গতকাল পুনরায় বৃদ্ধি পেতে শুরু করেছিল।  আজকের সেশনে পেয়ারটি সর্বোচ্চ ১.২৫৩০ প্রাইসে উঠলেও অতিক্রমে সক্ষম হয়নি। মার্কিন ট্রেজারি সেক্টর দুর্বল আসার ফলে আজকের সেশনে ডলারের মুভমেন্ট সীমিত মনে হচ্ছে। USDCAD পেয়ারের ক্ষেত্রে ১.২৫০০ সাপোর্ট হিসেবে কাজ করছে।  এছাড়াও WTI তেলের প্রাইস কমার ফলে USDCAD বুলিশে সহায়তা পাচ্ছে। টেকনিক্যাল অ্যানালাইসিস অনুযায়ী পেয়ারের ক্ষেত্রে ১.২৫৩০ রেজিস্ট্যান্স হিসেবে কাজ করছে।  ডেইলি চার্টে RSI ইনডিকেটর অনুযায়ী পেয়

ইউরোর বিপরীতে সুইস ফ্রাঙ্ক শক্তিশালী হচ্ছে- কমার্জব্যাংক

দ্বিতীয় দিনের মতো EURCHF পেয়ার ডাউনট্রেন্ড অব্যাহত রেখেছে। কমার্জব্যাংক অ্যানালাইসিস্ট টিম কারেন জনসের মতে, পেয়ারের ডাউনট্রেন্ড শক্তিশালী হয়ে ১.০৬২৩ প্রাইসে যেতে পারে। ২০২০ সালের নভেম্বরে পেয়ারের প্রাইস কমে সর্বনিন্ম ১.০৬২৩-তে গিয়েছিল। ফিবোনাসি রিট্রেসমেন্ট ৭৮.৬% অনুাযায়ী EURCHF পেয়ারের পরবর্তী সাপোর্ট হতে পারে ১.০৬৪৩। বর্তমানে EURCHF পেয়ার ১.০৬৮৭ প্রাইসের কাছাকাছি অবস্থান করছে। পেয়ারের বর্তমান রেজিস্ট্যান্স হতে পারে ১.০৭০১। ৫৫ দিনের মুভিং অ্যাভারেজ অনুযায়ী পরবর্তী রেজিস্ট্যান্

১১০.৮০ প্রাইসে যেতে পারে USDJPY- ক্রেডিট সুইস

দ্বিতীয় দিনের মতো USDJPY পেয়ার আপট্রেন্ড অব্যাহত রেখেছে। ক্রেডিট সুইস অ্যানালাইসিস্ট টিমের মতে, USDJPY পেয়ারের প্রাইস বৃদ্ধি পেয়ে ১১০.৮০-তে যেতে পারে। বর্তমানে পেয়ারটি ১১০.০৪ এর কাছাকাছি মুভমেন্ট করছে। পেয়ারটি ১১০.৪৫ রেজিস্ট্যান্স অতিক্রমের পরবর্তীতে ১১০.৮০ প্রাইসে যেতে পারে। USDJPY পেয়ার ১১০.৮১ অতিক্রমে বুলিশ দীর্ঘস্থায়ী হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। পেয়ারের বুলিশ স্থায়ী হলে পরবর্তী রেজিস্ট্যান্স হিসেবে কাজ করতে পারে ১১১.৬৬ ও ১১২.৪০। অপরদিকে পেয়ারের বর্তমান সাপোর্ট হিসেবে ১০৯.৫৩ দ

GBPUSD প্রাইস অ্যানালাইসিস

GBPUSD পেয়ারের প্রাইস বৃদ্ধি পেয়ে সেশনের সর্বোচ্চে অবস্থান করছে। আজ ইউরোপিয়ান সেশনে পেয়ারের প্রাইস বৃদ্ধি পেয়ে ১.৩৬৩৫- ৪০ অঞ্চলে মুভমেন্ট করছে। চলতি সপ্তাহে প্রথমদিনের মতো পেয়ারের প্রাইস বৃদ্ধি পাচ্ছে। বর্তমানে পেয়ারটি ১.৩৬২৫ প্রাইসের কাছাকাছি অবস্থান করছে। পেয়ারের বর্তমান রেজিস্ট্যান্স ১.৩৬৫০। আপট্রেন্ড অব্যাহত থাকলে পেয়ারটি ১.৩৭-২৫ রেঞ্জে যেতে পারে। অপরদিকে পেয়ারের বর্তমান সাপোর্ট ১.৩৬০০। ২০০ ঘন্টার মুভিং অ্যাভারেজ অনুযায়ী পরবর্তী সাপোর্ট হতে পারে ১.৩৫৭৫। ডাউনট্রেন্ড শক্তিশালী হলে

GBPUSD প্রাইস অ্যানালাইসিস

বেশ কিছুদিন  GBPUSD পেয়ার ১.৩৬৭২ থেকে ১.৩৫৪৩ প্রাইসের মধ্যে মুভমেন্ট করছে। গতকাল পেয়ারের প্রাইস কমলেও আজকের সেশনে বৃদ্ধি পাচ্ছে। ব্রিটিশ পাউন্ড একটি রেঞ্জের মধ্যে মুভমেন্ট করছে।  রেঞ্জটি অতিক্রমে পেয়ারের আপ-ডাউনট্রেন্ড শক্তিশালী হতে পারে। GBPUSD পেয়ার বর্তমানে ১.৩৬২০ প্রাইসের কাছাকাছি মুভমেন্ট করছে। ১.৩৬৭২ রেঞ্জ অতিক্রমে সক্ষম হলে আপট্রেন্ড শক্তিশালী হতে পারে। পরবর্তী রেজিস্ট্যান্স হতে পারে ১.৩৭০০। আপট্রেন্ড অব্যাহত থাকলে সেক্ষেত্রে ১.৩৭২০ অতিক্রমের পরবর্তীতে ১.৩৭৫০ প্রাইসে যেতে পারে

বিডিপিপস কি এবং কেন?

বিডিপিপস বাংলাদেশের সর্বপ্রথম অনলাইন ফরেক্স কমিউনিটি এবং বাংলা ফরেক্স স্কুল। প্রথমেই বলে রাখা জরুরি, বিডিপিপস কাউকে ফরেক্স ট্রেডিংয়ে অনুপ্রাণিত করে না। যারা বর্তমানে ফরেক্স ট্রেডিং করছেন, শুধুমাত্র তাদের জন্যই বিডিপিপস একটি আলোচনা এবং অ্যানালাইসিস পোর্টাল। ফরেক্স ট্রেডিং একটি ব্যবসা এবং উচ্চ লিভারেজ নিয়ে ট্রেড করলে তাতে যথেষ্ট ঝুকি রয়েছে। যারা ফরেক্স ট্রেডিংয়ের যাবতীয় ঝুকি সম্পর্কে সচেতন এবং বর্তমানে ফরেক্স ট্রেডিং করছেন, বিডিপিপস শুধুমাত্র তাদের ফরেক্স শেখা এবং উন্নত ট্রেডিংয়ের জন্য সহযোগিতা প্রদান করার চেষ্টা করে।

বিডিপিপস চ্যাট রুম

বিডিপিপস চ্যাট রুম

    চ্যাট করতে লগিন বা রেজিস্ট্রেশন করুন।
    ×
    ×
    • Create New...