Jump to content
Sign in to follow this  
মার্কেট আপডেট

চলতি সপ্তাহের AUDUSD ফরেক্স মার্কেট আপডেট (০২ থেকে ০৬ ডিসেম্বর)

Recommended Posts

AUDUSD পেয়ারটির প্রাইস গত চার সপ্তাহ ধরে ক্রমাগত কমছে। এ সপ্তাহে পেয়ারটি অক্টোবর মাসের সর্বনিন্ম প্রাইসে এসেছে। এ সপ্তাহে পেয়ারটিকে প্রভাবিত করতে পারে রিজার্ভ ব্যাংক অব অস্টেলিয়ার রেট ডিসিশন,জিডিপি এবং রিটেইল সেলস। এখানে এ সপ্তাহের মার্কেট আউটলুক এবং AUDUSD টেকনিক্যাল অ্যানালাইসিসগুলো আলোচনা করা হলো।

গত সপ্তাহে অস্টেলিয়ার ফান্ডামেন্টাল ইভেন্টগুলো তেমন ভাল ছিল না। ৩য় প্রান্তীকে অস্টেলিয়ার কন্সট্রাকশন সেক্টর শতকরা ০.৪% কমেছে। এটা ধারাবাহিকভাবে পঞ্চমবারের মতো পতন। তৃতীয় প্রান্তীকে অস্টেলিয়ার প্রাইভেট ক্যাপিটাল শতকরা ০.২% কমেছে। গত ছয়বারের মধ্যে এটাও পঞ্চমবারের মতো খারাপ এসেছে। তবে চীনের মেনুফেকচারিং সেক্টর কিছুটা ভাল এসেছে। চীনের মেনুফেকচারিং সেক্টর প্রত্যাশিত ৪৯.৫ পয়েন্টকে অতিক্রম করে ৫০.২ পয়েন্ট এসেছে। এপ্রিল মাসের পরবর্তীতে প্রথমবারের মতো পেয়ারটি কিছুটা ভাল করেছে।

গত সপ্তাহে যুক্তরাষ্ট্রের ইকোনমিক নিউজগুলো মার্কিন ডলারের অনুকূলে ছিল। অ্যানালাইসিস্টগণ ধারণা করেছিলেন ২য় প্রান্তীকের জিডিপি ১ম প্রান্তীকের মতো ১.৯% আসবে এবং এ ব্যাপারে তারা নিশ্চিত ছিলেন। কিন্তু দ্বিতীয় প্রান্তীকের GDP বেড়ে শতকরা ২.১% এসেছে। এটা প্রত্যাশিত লেভেল ১.৯% এর উপরে ছিল। তবে যুক্তরাষ্ট্রের মুদ্রাস্ফীতি শতকরা ০.১% বেড়েছে। এটা প্রত্যাশিত লেভেল ০.২% এর নিচে এসেছে।

AUDUSD প্রতিদিনের সাপোর্ট এবং রেজিস্ট্যান্স লাইনগুলো দেওয়া হলো

AUD_USD-Forecast-Dec.2-6.._2019-1.thumb.png.d7f549323b8090697b58787fff911c7a.png

১.MI Inflation Gauge

সোমবার,ভোর ০৫:০০।  এ সেক্টরটি দুর্বল অবস্থানে রয়েছে। গত দুই কোয়াটারে মুদ্রাস্ফীতি বেড়ে মাত্র ০.১% এসেছে।

২.Building Approvals

সোমবার, ভোর ০৫:৩০। গত দুই মাস এ সেক্টরটি খারাপ করার পর সেপ্টেম্বরে শতকরা ৭.৬% বেড়েছে। গত সাত মাসের মধ্যে এটা সর্বোচ্চ পয়েন্ট। প্রত্যাশা করা হচ্ছে, অক্টোবরে এ সেক্টরটিতে শতকরা ১.০% বাড়তে পারে।

৩.Company Operating Profits

সোমবার, ভোর ০৫: ৩০। ২য় প্রান্তীকে বিজনেস প্রফিট শতকরা ৪.৫% এসেছে। এটা খুব সহজেই প্রত্যাশিত ২.১% অতিক্রম করেছে। ২০১৮ সালের ১ম প্রান্তীকের পর এটা সবথেকে শক্তিশালী লেভেল। প্রত্যাশা করা হচ্ছে, ৩য় রিলিজে ১.০% আসতে পারে।

৪.Chinese Caixin Manufacturing PMI

সোমবার,সকাল ০৬:৪৫। যুক্তরাষ্ট্র এবং চীনের বানিজ্য যুদ্ধের প্রভাব বেশ ভাল করে চীনের মেনুফেকচারিং সেক্টরের উপর পরেছে। গত কয়েক বারের রিপোর্টে দেখা যায়, এ সেক্টরটি ৫০ পয়েন্টের কিছু উপরে অবস্থান করছে। অক্টোবরে এ সেক্টর থেকে ৫১.৭ পয়েন্ট এসেছে। যেখানে প্রত্যাশা করা হয়ছিল ৫১.৫ পয়েন্ট। এবারও ৫১.৭ পয়েন্ট আসতে পারে।

৫.Current Account

মঙ্গলবার, ভোর ০৫:৩০। ২য় প্রান্তীকে অস্টেলিয়ার কারেন্ট অ্যাকাউন্ট ৫.৯ বিলিয়ন ডলার অতিরিক্ত রয়েছে। এটা খুব সহজেই প্রত্যাশিত ১.৫ বিলিয়নকে অতিক্রম করেছে। প্রত্যাশা করা হচ্ছে,তৃতীয় প্রান্তীকে ৬.১ বিলিয়ন আসতে পারে।  

৬.RBA Rate Decision

মঙ্গলবার,সকাল ০৯:৩০। অক্টোবরে রিজার্ভ ব্যাংক অব অস্টেলিয়া ইন্টারেস্ট রেট শতকরা ০.৭৫% নির্ধারণ করেছিল। প্রত্যাশা করা হচ্ছে, এবারও ব্যাংক ইন্টারেস্ট রেট গতবারের মতো অপরিবর্তনীয় রাখবে। তবে ডিসিশনটি অস্টেলিয়ান ডলারের উপর বেশ প্রভাব ফেলতে পারে।

৭.AIG Service Index

মঙ্গলবার,ভোর ০৩:৩০।  অক্টোবরে সার্ভিস সেক্টরে ৫৪.২ পয়েন্ট এসেছে। ২০১৮ সালের নভেম্বর মাসের পর এটা সর্বোত্তম লেভেল। প্রত্যাশা করা হচ্ছে, এবারের রিপোর্ট গতবারের থেকে কিছুটা উন্নতি হতে পারে।

৮..GDP

বুধবার, ভোর ০৫:৩০। অস্টেলিয়ায় ১ম প্রান্তীকে জিডিপি ০.৪% এবং ২য় প্রান্তীকে ০.৫% এসেছে।  প্রত্যাশা করা হচ্ছে, এবারও একই ধরণের রেজাল্ট আসতে পারে।

৯.Retail Sales

বৃহস্পতিবার,ভোর ০৫:৩০। আগস্ট মাসে রিটেইল সেলস শতকরা ০.২% কমেছিল এবং সেপ্টেম্বরে০.৪% কমেছিল। প্রত্যাশা করা হচ্ছে, অক্টোবরে ০.৩% বাড়তে পারে।

১০.Trade Balance

বৃহস্পতিবার,ভোর ০৫:৩০। সেপ্টেম্বরে ট্রেড ব্যালেন্স ৭.১৮ বিলিয়ন অতিরিক্ত ছিল। এটা খুব সহজেই প্রত্যাশিত ৫.১০ বিলিয়নকে অতিক্রম করেছে। প্রত্যাশা করা হচ্ছে, অক্টোবরে ৬.৫০ বিলিয়ন অতিরিক্ত থাকতে পারে।

১১.AIG Construction Index

শুক্রবার , সকাল ০৬:৩০।  এ সেক্টরটি তেমন ভাল অবস্থানে নেই। অক্টোবরে এ সেক্টর থেকে ৪৩.৯ পয়েন্ট এসেছিল। প্রত্যাশা করা হচ্ছে, এবারও একই ধরণের পয়েন্ট আসতে পারে।

AUDUSD টেকনিক্যাল অ্যানালাইসিস

টেকনিক্যাল লাইনগুলো উপর থেকে নিচে দেওয়া হলো

এপ্রিল মাসের শুরুর দিকে ০.৭১৬৫ গুরুত্বপূর্ণ একটি রেজিস্ট্যান্স লেভেল ছিল।

জুলাই মাসে ০.৭০৮৫ আরেকটি গুরুত্বপূর্ণ রেজিস্ট্যান্স লেভেল ছিল। পরবর্তীতে ০.৭০২২ রেজিস্ট্যান্স লেভেলকে অনুসরণ করা হয়।

পেয়ারটির ক্ষেত্রে ০.৬৭৪৪ গুরুত্বপূর্ণ একটি সাপোর্ট লেভেল।

নভেম্বরের শুরুর দিকে ০.৬৬৮৬ আরেকটি গুরুত্বপূর্ণ সাপোর্ট লেভেল ছিল।

বর্তমান সাপোর্ট লেভেল ০.৬৪৫৬।

শেষ কথা

ফরেক্স বিশেষজ্ঞদের মতে, এ সপ্তাহে পেয়ারটির প্রাইস কমার সম্ভাবনা রয়েছে।

যুক্তরাষ্ট্রের তুলনায় অস্টেলিয়ার ইকোনমি তেমন শক্তিশালী অবস্থানে নেই। এছাড়াও  যুক্তরাষ্ট্র এবং চীনের বানিজ্য উত্তেজনা অস্টেলিয়ান ডলারের উপর প্রভাব ফেলবে।  সুতরাং এ সপ্তাহে পেয়ারটির প্রাইস কমতে পারে।

Share this post


Link to post
Share on other sites
Sign in to follow this  

বিডিপিপস কি এবং কেন?

বিডিপিপস বাংলাদেশের সর্বপ্রথম অনলাইন ফরেক্স কমিউনিটি এবং বাংলা ফরেক্স স্কুল। প্রথমেই বলে রাখা জরুরি, বিডিপিপস কাউকে ফরেক্স ট্রেডিংয়ে অনুপ্রাণিত করে না। যারা বর্তমানে ফরেক্স ট্রেডিং করছেন, শুধুমাত্র তাদের জন্যই বিডিপিপস একটি আলোচনা এবং অ্যানালাইসিস পোর্টাল। ফরেক্স ট্রেডিং একটি ব্যবসা এবং উচ্চ লিভারেজ নিয়ে ট্রেড করলে তাতে যথেষ্ট ঝুকি রয়েছে। যারা ফরেক্স ট্রেডিংয়ের যাবতীয় ঝুকি সম্পর্কে সচেতন এবং বর্তমানে ফরেক্স ট্রেডিং করছেন, বিডিপিপস শুধুমাত্র তাদের ফরেক্স শেখা এবং উন্নত ট্রেডিংয়ের জন্য সহযোগিতা প্রদান করার চেষ্টা করে।

×