Jump to content

মার্কেট আপডেট

Members
  • Content count

    1,061
  • Joined

  • Last visited

  • Days Won

    21

মার্কেট আপডেট last won the day on January 9

মার্কেট আপডেট had the most liked content!

Community Reputation

30 Excellent

3 Followers

About মার্কেট আপডেট

  • Rank
    Forex in the blood
  1. পেয়ারটি ১.৩০০০ প্রাইসের উপরে ট্রেডিং করছে। যুক্তরাষ্ট্র এবং চীনের বানিজ্য চুক্তির স্বাক্ষরতা নিয়ে নতুন উত্তেজনা সৃষ্টি হয়েছে। যার ফলে মার্কিন ডলার দুর্বল হচ্ছে, অপরদিকে পাউন্ডের প্রাইস বাড়ছে। বর্তমানে পেয়ারটি ১.৩০০০ প্রাইসের উপরে ট্রেডিং করছে। ২০০ ঘন্টার SMA অনুযায়ী, পেয়ারটির পরবর্তী রেজিস্ট্যান্স লেভেল হতে পারে ১.৩১০০। পেয়ারটির আপট্রেন্ড অব্যাহত থাকলে ১.৩১৬৫ থেকে ৭০ রেজিস্ট্যান্স লেভেলে আসতে পারে। অপরদিকে পেয়ারটির প্রাইস কমতে শুরু হলে ১.২৯৯০ থেকে ৮৫ সাপোর্ট লেভেলে আসতে পারে। পেয়ারটি ১.২৯৯০-৮৫ সাপোর্ট লেভেল অতিক্রম করতে সক্ষম হলে ১.২৯০০ লেভেলে আসতে পারে। সন্ধ্যা ০৭:৩০ মিনিটে যুক্তরাষ্ট্রের রিটেইল সেলস রিপোর্টের দিকে নজর রাখা প্রয়োজন। রিপোর্টটিকে কেন্দ্র করে মার্কেটে মুভমেন্ট বৃদ্ধির সম্ভাবনা রয়েছে।
  2. আজ সন্ধ্যা ০৬:৩০ মি: ইসিবি ইভেন্ট রয়েছে। মিনিংয়ে ইউরোপিয়ান কেন্দ্রীয় ব্যাংকের গর্ভনর ক্রিস্টিন লেগার্ড আলোচনা করবেন। ইউরোজোনের পরবর্তী ইকোনমিক পদক্ষেপগুলো কি হবে এ সম্পর্কে আলোচনা করা হবে। মিটিংয়ে ডভিশ মন্তব্য করা হলে পেয়ারটির প্রাইস কমার সম্ভাবনা রয়েছে। অপরদিকে পজিটিভ মন্তব্য করা হলে পেয়ারটির প্রাইস বাড়ার সম্ভাবনা রয়েছে। এছাড়াও আজ সন্ধ্যা ০৭:৩০ মিনিটে যুক্তরাষ্ট্রের রিটেইল সেলস রিপোর্ট রয়েছে। প্রত্যাশা করা হচ্ছে,এবার রিটেইল সেলস প্রত্যাশার তুলনায় ভাল আসতে পারে। নভেম্বরে রিটেইল সেলস শতকরা ০.২% বেড়েছিল। প্রত্যাশা করা হচ্ছে, ডিসেম্বরে শতকরা ০.৩% বাড়তে পারে। নভেম্বরে কোর রিটেইলস সেলস শতকরা ০.১% বেড়েছিল। প্রত্যাশা করা হচ্ছে, ডিসেম্বরে বেড়ে ০.৫% আসতে পারে। ইউরো/ডলার পেয়ারটির ক্ষেত্রে আজকের মূল ইভেন্ট যুক্তরাষ্ট্রের রিটেইল সেলস রিপোর্ট। প্রত্যাশা করা হচ্ছে, ইভেন্টটি ভাল আসতে পারে। যার ফলে মার্কিন ডলারের বিপরীতে ইউরোর প্রাইস বাড়ার সম্ভাবনা রয়েছে। এর ফলে মার্কেটে মুভমেন্ট সৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে। পেয়ারটি বর্তমানে ১.১১৫৮ প্রাইসে অবস্থান করছে। ইউরো/ডলার আপট্রেন্ড অব্যাহত থাকলে পরবর্তী রেজিস্ট্যান্স লেভেল হতে পারে ১.১১৬৫। পেয়ারটির আপট্রেন্ড দীর্ঘস্থায়ী হলে যথাক্রমে ১.১২০৫,১.১২৩০ এবং ১.১২৪০ রেজিস্ট্যান্স লেভেলে আসতে পারে। অপরদিকে পেয়ারটি ডাউনট্রেন্ডে আসলে ১.১১৪৫ সাপোর্ট লেভেলে আসতে পারে। ১.১১৬৫ সাপোর্ট লেভেলকে অতিক্রম করতে সক্ষম হলে পরবর্তীতে ১.১১২৫ সাপোর্ট লেভেলে আসতে পারে। পেয়ারটির পরবর্তী সাপোর্ট লেভেলগুলো হতে পারে যথাক্রমে ১.১১০৫ এবং ১.১০৮৫ সাপোর্ট লেভেলে।
  3. EURUSD সিগন্যাল পেয়ারটির ১.১১৪০ সাপোর্ট লেভেলের দিকে একটি নিন্মমূখী প্রাইস রিট্রেসমেন্টের সম্ভাবনা রয়েছে বা ১.১১৬৩ রেজিস্ট্যান্স লেভেলে ব্রেক হতে পারে। সেক্ষেত্রে বাই পজিশন নেওয়া যেতে পারে। ৬০ মিনিট (১ঘন্টার) চার্টের সিগনাল (পরবর্তী ৩ দিন) ট্রেন্ডের ধরণ: মার্কেট ঊর্ধ্বখীভাবে শক্তিশালী। সাপোর্ট লেভেল: ১.১১৪০, ১.১১২৫, ১.১১০০ রেজিস্ট্যান্স লেভেল: ১.১১৬৩, ১.১১৭৫, ১.১১৯৬ টেক প্রফিট: ১.১১৭৫,১.১১৯৬ ২৪০ মিনিট (৪ ঘন্টার ) চার্টের সিগনাল (পরবর্তী ৩ সপ্তাহ) ট্রেন্ডের ধরণ: মার্কেট নিন্মমূখীভাবে শক্তিশালী। মার্কেটের ১.১১৫০ বাই এন্ট্রি দেওয়া হয়েছে। পেয়ারটি ১.১১০০ প্রাইস লেভেল ভেঙ্গে নিচে নামলে বুলিশ ট্রেন্ড পরিবর্তন হতে পারে। সাপোর্ট লেভেল: ১.১১০০,১.১০৭০,১.১০২০ রেজিস্ট্যান্স লেভেল: ১.১১৭০,১.১২১০,১.১২৭০ বাই এন্ট্রি: ১.১১৫০ স্টপ লস: ১.১১০০ ট্রেডের সম্ভাবনা: মাঝারি টেক প্রফিট: ১.১১৭০,১.১২১০ GBPUSD সিগন্যাল ৬০ মিনিট (১ঘন্টার) চার্টের সিগনাল (পরবর্তী ৩ দিন) পেয়ারটি ১.৩০২০ সাপোর্ট লেভেলের দিকে একটি নিন্মমূখী প্রাইস রিট্রেসমেন্টের সম্ভাবনা রয়েছে। সেক্ষত্রে বাই পজিশন নেওয়া যেতে পারে। ট্রেন্ডের ধরণ: মার্কেট ঊর্ধ্বমূখীভাবে শক্তিশালী। সাপোর্ট লেভেল: ১.৩০২০,১.২৯৯০,১.২৯৫০ রেজিস্ট্যান্স লেভেল: ১.৩০৭০,১.৩১০০,১.৩১৪০ ২৪০ মিনিট (৪ ঘন্টার) চার্টের সিগনাল (পরবর্তী ৩ সপ্তাহ) মার্কেট ১.৩০৭০ রেজিস্ট্যান্স লেভেলে টেস্টিং করছে। আমরা সেল পজিশন নেওয়ার জন্য কিছু সিগন্যালের অপেক্ষা করছি বা ১.২৯৫০ সাপোর্ট লেভেলে ব্রেক হতে পারে। পরবর্তী গুরুত্বপূর্ণ রেজিস্ট্যান্স লেভেল ১.৩১৪০। ট্রেন্ডের ধরণ: মার্কেট নিন্মমূখীভাবে শক্তিশালী। সাপোর্ট লেভেল: ১.২৯৫০,১.২৮৯০,১.২৭৯০ রেজিস্ট্যান্স লেভেল: ১.৩০৭০,১.৩১৪০,১.৩২৭০ টেক প্রফিট: ১.২৮৯০,১.২৭৯০
  4. AUDUSD সিগন্যাল ৬০ মিনিট (১ ঘন্টার) চার্টের সিগন্যাল (পরবর্তী ৩ দিন) পেয়ারটি ০.৬৮৯০ সাপোর্ট লেভেলের দিকে একটি নিন্মমূখী প্রাইস রিট্রেসমেন্টের সম্ভাবনা রয়েছে বা ০.৬৯২০ রেজিস্ট্যান্স লেভেলে ব্রেক হতে পারবো। সেক্ষত্রে বাই পজিশন নেওয়া যেতে পারে। ট্রেন্ডের ধরণ: মার্কেট ঊর্ধ্বমূখীভাবে শক্তিশালী। সাপোর্ট লেভেল: ০.৬৮৯০,০.৬৮৮০,০.৬৮৬৫ রেজিস্ট্যান্স লেভেল: ০.৬৯২০,০.৬৯৩০,০.৬৯৪৫ টেক প্রফিট: ০.৬৯৩০,০.৬৯৪৫ ২৪০ মিনিট (৪ ঘন্টার) চার্টের সিগন্যাল (পরবর্তী ৩ দিন) মার্কেট আপট্রেন্ডে রয়েছে। আমরা বাই পজিশন নেওয়ার জন্য ০.৬৯২০ রেজিস্ট্যান্স লেভেলের উপর কিছু সিগন্যালের অপেক্ষা করছি। পেয়ারটি ০.৬৮৭৫ প্রাইস লেভেল ভেঙ্গে উপরে উঠলে বুলিশ ট্রেন্ড পরিবর্তন হতে পারে। সেক্ষেত্রে সেল পজিশন নেওয়া যেতে পারে। ট্রেন্ডের ধরণ: মার্কেট ঊর্ধ্বমূখীভাবে শক্তিশালী। সাপোর্ট লেভেল: ০.৬৮৭৫,০.৬৮৫০,০.৬৮১০ রেজিস্ট্যান্স লেভেল: ০.৬৯২০,০.৬৯৪৫,০.৬৯৮৫ বাই এন্ট্রি: ০.৬৯২০ স্টপ লস: ০.৬৯৮৫ ট্রেডের সম্ভাবনা: মাঝারি টেক প্রফিট: ০.৬৯৪৫,০.৬৯৮৫ USDJPY সিগন্যাল ৬০ মিনিট (১ ঘন্টার) চার্টের সিগন্যাল (পরবর্তী ৩ দিন) পেয়ারটি ১১০.০০ রেজিস্ট্যান্স লেভেলে টেস্টিং করছে। আমরা সেল পজিশন নেওয়ার জন্য কিছু সিগন্যালের অপেক্ষা করছি বা ১০৯.৭৮ সাপোর্ট লেভেলে ব্রেক হতে পারে। পরবর্তী গুরুত্বপূর্ণ রেজিস্ট্যান্স লেভেল ১১০.১৫। ট্রেন্ডের ধরণ: মার্কেট নিন্মমূখীভাবে শক্তিশালী। সাপোর্ট লেভেল: ১০৯.৭৮,১০৯.৬৫,১০৯.৪৫ রেজিস্ট্যান্স লেভেল: ১১০.০০,১১০.১৫,১১০.৩৫ টেক প্রফিট: ১০৯.৬৫,১০৯.৪৫ ২৪০ মিনিট (৪ ঘন্টার) চার্টের সিগন্যাল (পরবর্তী ৩ দিন) মার্কেট ২য় টেক প্রফিটে পৌঁছেছে। আমরা পরবর্তী সুযোগের অপেক্ষা করছি।পেয়ারটি ১০৯.৫০ সাপোর্ট লেভেলের দিকে একটি ন্ন্মিমূখী প্রাইস রিট্রেসমেন্টের সম্ভাবনা রয়েছে। সেক্ষেত্রে বাই পজিশন নেওয়া যেতে পারে। ট্রেন্ডের ধরণ: মার্কেট ঊর্ধ্বমূখীভাবে শক্তিশালী। সাপোর্ট লেভেল: ১০৯.৫০,১০৯.১০,১০৮.৫০ রেজিস্ট্যান্স লেভেল: ১১০.২০,১১০.৫০,১১১.১০
  5. যুক্তরাষ্ট্র এবং চীনের বানিজ্য আলোচনার আশাবাদকে কেন্দ্র করে USDJPY পেয়ারটির প্রাইস আপট্রেন্ডে রয়েছে। পেয়ারটির বর্তমান ফোকাস যুক্তরাষ্ট্রের রিটেইল সেলস রিপোর্ট। USDJPY গতকাল ডাউনট্রেন্ডে থাকলেও আজ পেয়ারটি আপট্রেন্ডে রয়েছে। বর্তমানে পেয়ারটি ১১০.০০ প্রাইসের নিচে অবস্থান করছে। আজ সন্ধ্যায় যুক্তরাষ্ট্রের রিটেইল সেলস রিপোর্ট প্রকাশ করা হবে। প্রত্যাশা করা হচ্ছে, গতবারের রিপোর্টের তুলনায় এবার রিটেইল সেলস রিপোর্ট ভাল হতে পারে। এর ফলে USDJPY পেয়ারটির প্রাইস বাড়ার সম্ভাবনা রয়েছে। সেক্ষেত্রে পেয়ারটি ১১০.০০ প্রাইসকে অতিক্রম করতে পারে। পেয়ারটির ক্ষেত্রে বর্তমানে ১০৯.৮২ গুরুত্বপূর্ণ একটি সাপোর্ট লেভেল হিসেবে কাজ করতে পারে। পেয়ারটি ১০৯.৮২ প্রাইসকে অতিক্রম করতে সক্ষম হলে পেয়ারটি প্রাইস আরও কমতে পারে। তবে যুক্তরাষ্ট্রের রিটেইল সেলসকে কেন্দ্র করে প্রত্যাশা করা হচ্ছে, পেয়ারটির আপটেন্ডে থাকতে পারে। সুতরাং পেয়ারটির ক্ষেত্রে বাই এন্ট্রি নেওয়া যেতে পারে
  6. কমার্জব্যাংক অ্যানালাইসিস্ট কারেন জনের মতে, ইউরো/ডলার সীমিত পরিসরে রিকভারের চেষ্টা করছে। গতকাল ইউরো/ডলার সর্বোচ্চ ১.১১৬২ প্রাইসে উঠলেও পরবর্তীতে পেয়ারটির প্রাইস কমে ১.১১২৫-তে এসেছিল। আজকের সেশনে পেয়ারটি ১.১১২৫ প্রাইসে ওপেন হয়েছে। তবে পেয়ারটির প্রাইস বেড়ে ১.১১৫৪ তে- অবস্থান করছে। সেক্ষেত্রে ১.১১৯০ গুরুত্বপূর্ণ একটি রেজিস্ট্যান্স লেভেল হিসেবে কাজ করেতে পারে। তবে পেয়ারটি ১.১১৯০ প্রাইসকে অতিক্রম করতে সক্ষম হলে পরবর্তী রেজিস্ট্যান্স লেভেল হতে পারে ১.১২৪০। অপরদিকে পেয়ারটির প্রাইস কমলে ১.১১৪০ গুরুত্বপূর্ একটি সাপোর্ট লেভেল হিসেবে কাজ করতে পারে। পেয়ারটি ১.১১৪০ এর নিচে নামলে পেয়ারটির ডাউনট্রেন্ড বৃদ্ধি পাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। প্রত্যাশা করা হচ্ছে, বর্তমানে পেয়ারটির প্রাইস বাড়তে পারে এবং ১.১১৯০ রেজিস্ট্যান্স লেভেলে যেতে পারে। সুতরাং ট্রেডারদের ১.১১৯০ রেজিস্ট্যান্স এবং ১.১১৪০ সাপোর্ট লেভেলের দিকে খেয়াল রাখা প্রয়োজন। কারণ লেভেল দুটি বেশ গুরুত্বপূর্ণ।
  7. EURUSD সিগন্যাল ৬০ মিনিট (১ঘন্টার) চার্টের সিগনাল (পরবর্তী ৩ দিন) পেয়ারটি ১.১১২০ রেজিস্ট্যান্স লেভেলের দিকে একটি নিন্মমূখীভাবে প্রাইস রিট্রেসমেন্টের সম্ভাবনা রয়েছে।সেক্ষেত্রে বাই পজিশন নেওয়া যেতে পারে। ট্রেন্ডের ধরণ : মার্কেট ঊর্ধ্বভাবে শক্তিশালী। সাপোর্ট লেভেল : ১.১১2০,১.১১০০,১.১০৭০ রেজিস্ট্যান্স লেভেল : ১.১১৫০,১.১১৭০,১.১২০০ ২৪০ মিনিট (৪ ঘন্টার ) চার্টের সিগনাল ( পরবর্তী ৩ সপ্তাহ ) ট্রেন্ডের ধরণ : মার্কেট নিন্মমূখীভাবে শক্তিশালী। মার্কেট ডাউনট্রেন্ডে রয়েছে।আমরা ১.১০৮০ সাপোর্ট লেভেলে সেল পজিশন নেওয়ার জন্য কিছু সিগন্যালের অপেক্ষা করছি।পেয়ারটি ১.১১৫০ প্রাইস লেভেল ভেঙ্গে উপরে উঠলে বিয়ারিশ ট্রেন্ড পরিবর্তন হতে পারে।সেক্ষেত্রে বাই পজিশন নেওয়া যেতে পারে। সাপোর্ট লেভেল : ১.১০৮০,১.১০৪৫,১.০৯৯০ রেজিস্ট্যান্স লেভেল : ১.১১৫০,১.১১৭০,১.১২১০ GBPUSD সিগন্যাল ৬০ মিনিট ( ১ঘন্টার ) চার্টের সিগনাল (পরবর্তী ৩ দিন ) পেয়ারটি ১.৩০০০ সাপোর্ট লেভেলের দিকে একটি নিন্মমূখীভাবে প্রাইস রিট্রেসমেন্টের সম্ভাবনা রয়েছে।সেক্ষেত্রে বাই পজিশন নেওয়া যেতে পারে। ট্রেন্ডের ধরণ: মার্কেট ঊর্ধ্বভাবে শক্তিশালী। সাপোর্ট লেভেল : ১.৩০০০,১.২৯৬০,১.২৯০০ রেজিস্ট্যান্স লেভেল : ১.৩০৬০,১.৩১০০,১.৩১৬০ ২৪০ মিনিট (৪ ঘন্টার ) চার্টের সিগনাল ( পরবর্তী ৩ সপ্তাহ ) মার্কেটের পরবর্তী সুযোগের অপেক্ষা করা ভাল হবে। ট্রেন্ডের ধরণ: মার্কেট নিন্মমূখীভাবে শক্তিশালী। সাপোর্ট লেভেল: ১.২৮১০,১.২৯০০,১.২৮১০ রেজিস্ট্যান্স লেভেল: ১.৩০৭০,১.৩১৪০,১.৩২৭০
  8. ইউরো/ডলার আজ সারাদিন ১.১১৪০ প্রাইসের নিচে ট্রেডিং করছে। ৫৫ দিনের SMA অনুযায়ী, পেয়ারটির বর্তমান সাপোর্ট লেভেল ১.১০৯৩ হতে পারে। ২০০ দিনের SMA অনুযায়ী, পেয়ারটি আজ ১.১১৪০ প্রাইসের কাছকাছি অবস্থান করছিল। বর্তমানে পেয়ারটির প্রাইস কমতে শুরু করেছে। যুক্তরাষ্ট্রের CPI রিপোর্টকে কেন্দ্র করে পেয়ারটির প্রাইস কমতে বা বাড়তে পারে। প্রত্যাশা করা হচ্ছে, পেয়ারটি ১.১১৮৬ সাপোর্ট লেভেলে আসতে পারে। তবে বর্তমানে ১.১১৪০ শক্তিশালী একটি রেজিস্ট্যান্স লেভেল হিসেবে কাজ করছে। পেয়ারটি ১.১১৮৬ রেজিস্ট্যান্স লেভেলকে অতিক্রম করতে সক্ষম হলে পরবর্তীতে ১.১২৪০ রেজিস্ট্যান্স লেভেলে আসতে পারে। অপরদিকে পেয়ারটির প্রাইস কমতে শুরু হলে ৫৫ দিনের SMA অনুযায়ী, ১.১০৯০ সাপোর্ট লেভেলে আসতে পারে। ইউরো/ডলারের ডেইলি চার্ট
  9. পাউন্ড/ডলার ১.৩০ প্রাইসের নিচে অবস্থান করছে। পেয়ারটির প্রাইস কমার পিছনে ব্রিটিশ জিডিপি এবং ব্যাংক অব ইংল্যান্ডের ডভিশ মন্তব্য কাজ করছে। পেয়ারটির বর্তমান অপেক্ষা যুক্তরাষ্ট্র এবং যুক্তরাজ্যের CPI ডাটা। আজ সন্ধ্যা ৭:৩০ যুক্তরাষ্ট্রের CPI ডাটা রিলিজ করা হবে। প্রত্যাশা করা হচ্ছে, এবারের ডাটা গতবারের থেকে খারাপ হতে পারে। ডাটা প্রত্যাশিত লেভেলের উপরে বা নিচে আসলে মার্কেটে মুভমেন্ট বৃদ্ধি পেতে পারে। এছাড়াও আগমীকাল ব্রিটিশ CPI ডাটা রিলিজ করা হবে। তবে ব্রিটিশ CPI গতবারের ১.৫% এ অপরিবর্তনীয় থাকতে পারে। সেক্ষেত্রে কিছু সাপোর্ট এবং রেজিস্ট্যান্স লাইন দেওয়া হলো। পেয়ারটি বর্তমানে ১.৩০০০ প্রাইসের নিচে অবস্থান করছে। পেয়ারটির বর্তমান সাপোর্ট লেভেল ১.২৯৫০। পেয়ারটি ১.২৯৫০ প্রাইসকে অতিক্রমের পরবর্তীতে ১.২৯০০ সাপোর্ট লেভেলে আসতে পারে। পেয়ারটির রিকভার শরু হলে ১.৩০১০ রেজিস্ট্যান্স লেভেলে আসতে পারে। পেয়ারটির পরবর্তী রেজিস্ট্যান্স লেভেল হতে পারে ১.৩০৪৫। পেয়ারটি ১.৩০৪৫ রেজিস্ট্যান্স লেভেলকে অতিক্রম করতে সক্ষম হলে ১.৩০৮০ রেজিস্ট্যান্স লেভেলে আসতে পারে।
  10. AUDUSD সিগন্যাল ৬০ মিনিট (১ ঘন্টার) চার্টের সিগন্যাল (পরবর্তী ৩ দিন) মার্কেট ০.৬৯১০ রেজিস্ট্যান্স লেভেলে টেস্টিং করছে। আমরা সেল পজিশন নেওয়ার জন্য কিছু সিগন্যালের অপেক্ষা করছি বা ০.৬৮৮৪ সাপোর্ট লেভেলে ব্রেক হতে পারে। পরবর্তী গুরুত্বপূর্ণ রেজিস্ট্যান্স লেভেল ০.৬৯২০। ট্রেন্ডের ধরণ: মার্কেট নিন্মমূখীভাবে শক্তিশালী। সাপোর্ট লেভেল: ০.৬৮৮৪,০৬৮৭১,০.৬৮৫০ রেজিস্ট্যান্স লেভেল: ০.৬৯১০,০.৬৯২০,০.৬৯৩৫ টেক প্রফিট: ০.৬৮৭১,০.৬৮৫০ ২৪০ মিনিট (৪ ঘন্টার) চার্টের সিগন্যাল (পরবর্তী ৩ দিন) পেয়ারটি ০.৬৮৮৪ সাপোর্ট লেভেলের দিকে একটি নিন্মমূখী প্রাইস রিট্রেসমেন্টের সম্ভাবনা রয়েছে বা ০.৬৯২০ রেজিস্ট্যান্স লেভেলে ব্রেক হতে পারে। সেক্ষত্রে বাই পজিশন নেওয়া যেতে পারে। ট্রেন্ডের ধরণ: মার্কেট ঊর্ধ্বমূখীভাবে শক্তিশালী। সাপোর্ট লেভেল: ০.৬৮৮৪,০.৬৮৪৫,০.৬৮০০ রেজিস্ট্যান্স লেভেল: ০.৬৯২০,০.৬৯৪০,০.৬৯৭৫ টেক প্রফিট: ০.৬৮৭১,০.৬৮৫০ USDJPY সিগন্যাল ৬০ মিনিট (১ ঘন্টার) চার্টের সিগন্যাল (পরবর্তী ৩ দিন) পেয়ারটি ১০৯.৮০ সাপোর্ট লেভেলের দিকে একটি নিন্মমূখী প্রাইস রিট্রেসেমেন্টের সম্ভাবনা রয়েছে। সেক্ষত্রে বাই পজিশন নেওয়া যেতে পারে। ট্রেন্ডের ধরণ: মার্কেট ঊর্ধ্বমূখীভাবে শক্তিশালী। সাপোর্ট লেভেল: ১০৯.৮০,১০৯.৬০,১০৯.৩০ রেজিস্ট্যান্স লেভেল: ১১০.৩০,১১০.৫০,১১০.৮০ ২৪০ মিনিট (৪ ঘন্টার) চার্টের সিগন্যাল (পরবর্তী ৩ দিন) মার্কেট ২য় টেক প্রফিটে পৌঁছেছে। আমরা পরবর্তী সুযোগের অপেক্ষা করছি। পেয়ারটি ১০৯.৫০ সাপোর্ট লেভেলের দিকে একটি ন্ন্মিমূখী প্রাইস রিট্রেসমেন্টের সম্ভাবনা রয়েছে। সেক্ষেত্রে বাই পজিশন নেওয়া যেতে পারে। ট্রেন্ডের ধরণ: মার্কেট ঊর্ধ্বমূখীভাবে শক্তিশালী। সাপোর্ট লেভেল: ১০৯.৫০,১০৯.১০,১০৮.৪০ রেজিস্ট্যান্স লেভেল: ১১০.৭০,১১.০০,১১১.৫০
  11. EURUSD সিগন্যাল মার্কেটের ১.১১৩৫ এ বাই সিগন্যাল এবং ১.১১৩৫-তে একটি রেজিস্ট্যান্স লেভেল দেওয়া হয়েছে। ৬০ মিনিট (১ঘন্টার) চার্টের সিগনাল (পরবর্তী ৩ দিন) ট্রেন্ডের ধরণ: মার্কেট ঊর্ধ্বখীভাবে শক্তিশালী। সাপোর্ট লেভেল: ১.১১১০,১.১০৯০,১.১০৬০ রেজিস্ট্যান্স লেভেল: ১.১১৫০,১.১১৭০,১.১২০০ বাই এন্ট্রি: ১.১১৩৫ স্টপ লস: ১.১১১০ ট্রেডের সম্ভাবনা: মাঝারি টেক প্রফিট: ১.১১৫০,১.১১৭০ ২৪০ মিনিট (৪ ঘন্টার ) চার্টের সিগনাল (পরবর্তী ৩ সপ্তাহ) ট্রেন্ডের ধরণ: মার্কেট নিন্মমূখীভাবে শক্তিশালী। মার্কেট ১.১১৬০ রেজিস্ট্যান্স লেভেলে টেস্টিং করছে। আমরা সেল পজিশন নেওয়ার জন্য কিছু সিগন্যালের অপেক্ষা করছি বা ১.১০৮০ সাপোর্ট লেভেলে ব্রেক হতে পারে। পরবর্তী গুরুত্বপূর্ণ রেজিস্ট্যান্স লেভেল ১.১২০০। সাপোর্ট লেভেল: ১.১০৮০,১.১০৪৫,১.০৯৯০ রেজিস্ট্যান্স লেভেল: ১.১১৬০,১.১২০০,১.১২৬০ টেক প্রফিট: ১.১০৪৫,১.০৯৯০ GBPUSD সিগন্যাল ৬০ মিনিট (১ঘন্টার) চার্টের সিগনাল (পরবর্তী ৩ দিন) মার্কেট ১ম টেক প্রফিট লেভেলে পৌঁছেছে। আমরা ১.৩০৮০ প্রফিট লেভেলে স্টপ লস নেব। আশা করছি মার্কেট খুব তাড়াতাড়ি ২য় টেক প্রফিট লেভেলে পৌঁছাবে। ট্রেন্ডের ধরণ: মার্কেট নিন্মমূখীভাবে শক্তিশালী। সাপোর্ট লেভেল: ১.১২৬০,১.২৯৩০,১.২৮৯০ রেজিস্ট্যান্স লেভেল: ১.৩০৯৫,১.৩১৫০,১.৩২৩০ সেল এন্ট্রি: ১.৩০৮০ স্টপ লস: ১.৩০৮০ ট্রেডের সম্ভাবনা: মাঝারি টেক প্রফিট: ১.২৯৭০,১.২৮৯০ ২৪০ মিনিট (৪ ঘন্টার) চার্টের সিগনাল (পরবর্তী ৩ সপ্তাহ) মার্কেট ১ম টেক প্রফিট লেভেলে পৌঁছেছে। আমরা ১.৩০৪০ প্রফিট লেভেলে স্টপ লস নেব। আশা করছি মার্কেট খুব তাড়াতাড়ি ২য় টেক প্রফিট লেভেলে পৌঁছাবে। ট্রেন্ডের ধরণ: মার্কেট নিন্মমূখীভাবে শক্তিশালী। সাপোর্ট লেভেল: ১.২৯৬০,১.২৮৮০,১.২৬৭০ রেজিস্ট্যান্স লেভেল: ১.৩২১০,১.৩২৯০,১.৩৪০০ সেল এন্ট্রি: ১.৩০৪০ স্টপ লস: ১.৩০৪০ ট্রেডের সম্ভাবনা: মাঝারি টেক প্রফিট: ১.২৯৬০,১.২৮৮০
  12. কমার্জব্যাংক অ্যানালাইসিস্ট কারেন জনসের মতে, পাউন্ড/ডলার পেয়ারটির প্রাইস কমে ডিসেম্বর মাসের সর্বনিন্ম প্রাইস ১.২৯০৮-তে আসতে পারে। পেয়ারটির পরবর্তী সাপোর্ট লেভেল হতে পারে ১.২৯০৮। পেয়ারটির ডাউনট্রেন্ড বৃদ্ধি পেলে,পরবর্তী সাপোর্ট লেভেল হতে পারে ১.২৮১১। বর্তমানে পেয়ারটি ১.২৯৬৭ প্রাইসে অবস্থান করছে। পেয়ারটির বর্তমান অবস্থান থেকে প্রাইস বাড়তে শুরু হলে ১.৩২৮৫ রেজিস্ট্যান্স লেভেলে আসতে পারে।
  13. ডলার/ইয়েন পেয়ারটির প্রাইস গত দুই সপ্তাহ বাড়ছে। বর্তমানে পেয়ারটি ১১০.০০ প্রাইসের উপরে অবস্থান করছে। নিচে পেয়ারটির কয়েকটি সাপোর্ট এবং রেজিস্ট্যান্স লাইন দেওয়া হলো। এক দিনের চার্টে ২৩.৬% ফিবোনাসি এবং কনফ্লুয়েন্স ইনডিকেটর অনুযায়ী, পেয়ারটির প্রাইস বর্তমান অবস্থান থেকে কমতে শুরু হলে ১০৯.৮২ সাপোর্ট লেভেলে আসতে পারে। পেয়ারটি ১০৯.৮২ প্রাইসকে অতিক্রম করতে সক্ষম হলে এক মাসের চার্টে ৬১.৮% ফিবোনাসি অনুযায়ী, পেয়ারটির পরবর্তী সাপোর্ট লেভেল হতে পারে ১০৯.৩২। অপরদিকে পেয়ারটির প্রাইস বাড়তে শুরু হলে এক মাসের চার্টে ১৬১.৮% ফিবোনাসি অনুযায়ী ১১০.৬৩ রেজিস্ট্যান্স লেভেলে আসার সম্ভাবনা রয়েছে।
  14. গতকাল যুক্তরাষ্ট্রের মেনুফেকচারিং পিএমআইকে কেন্দ্র করে পাউন্ড/ডলারের প্রাইস কমেছিল। যুক্তরাষ্ট্রের CPI ডাটাকে কেন্দ্র করে পাউন্ড/ডলার পেয়ারটির প্রাইস কমতে শুরু করেছে। পাউন্ড/ডলার পেয়ারটি ১.২৯৮০ প্রাইসের নিচে অবস্থান করছে। পেয়ারটি ১.৩০০০ প্রাইসে রিকভারের চেষ্টা করছে। আজ যুক্তরাষ্ট্রের সিপিআই ডাটাকে কেন্দ্র করে পেয়ারটির প্রাইস বাড়ার সম্ভাবনা রয়েছে। গত মাসে যুক্তরাষ্ট্রের সিপিআই ০.৩% এবং কোর সিপিআই ০.২% এসেছিল। প্রত্যাশা করা হচ্ছে, এবার সেক্টরটি আরও দুর্বল হতে পারে। ডিসেম্বরে সিপিআই ০.২% এবং কোর সিপিআই ০.২% অপরিবর্তনীয় থাকতে পারে। এর ফলে পাউন্ড/ডলারের প্রাইস বেড়ে ১.৩০০০ আসার সম্ভাবনা রয়েছে।
  15. ইউরো/ডলারের প্রাইস বেড়ে ১.১১৪০ এর উপরে যেতে পারে। ট্রেডারদের বর্তমান ফোকাস যুক্তরাষ্ট্রের CPI রিপোর্টের দিকে। আজ সন্ধ্যা ০৭:৩০ মিনিটে যুক্তরাষ্ট্রের CPI ডাটা প্রকাশ করা হবে। গতবারের রিপোর্টে যুক্তরাষ্ট্রের সিপিআই শতকরা ০.৩% এসেছিল এবং কোর সিপিআই ০.২% এসেছিল। প্রত্যাশা করা হচ্ছে, ডিসেম্বরের রিপোর্টে সিপিআই কমে ০.২% আসতে পারে এবং কোর সিপিআই ০.২% অপরিবর্তনীয় থাকতে পারে। বর্তমানে ইউরো/ডলারের প্রাইস বেড়ে ১.১১৪০ এর কাছাকাছি অবস্থান করছে। যুক্তরাষ্ট্রের সিপিআই এর দুর্বলতাকে কেন্দ্র করে পেয়ারটির প্রাইস আরও কমতে পারে। পেয়ারটির পরবর্তী সাপোর্ট লেভেল হতে পারে ১.১১৫০ এবং পরবর্তী সাপোর্ট লেভেল হতে পারে ১.১০৮৫।

বিডিপিপস কি এবং কেন?

বিডিপিপস বাংলাদেশের সর্বপ্রথম অনলাইন ফরেক্স কমিউনিটি এবং বাংলা ফরেক্স স্কুল। প্রথমেই বলে রাখা জরুরি, বিডিপিপস কাউকে ফরেক্স ট্রেডিংয়ে অনুপ্রাণিত করে না। যারা বর্তমানে ফরেক্স ট্রেডিং করছেন, শুধুমাত্র তাদের জন্যই বিডিপিপস একটি আলোচনা এবং অ্যানালাইসিস পোর্টাল। ফরেক্স ট্রেডিং একটি ব্যবসা এবং উচ্চ লিভারেজ নিয়ে ট্রেড করলে তাতে যথেষ্ট ঝুকি রয়েছে। যারা ফরেক্স ট্রেডিংয়ের যাবতীয় ঝুকি সম্পর্কে সচেতন এবং বর্তমানে ফরেক্স ট্রেডিং করছেন, বিডিপিপস শুধুমাত্র তাদের ফরেক্স শেখা এবং উন্নত ট্রেডিংয়ের জন্য সহযোগিতা প্রদান করার চেষ্টা করে।

×