Jump to content

ফোরাম ফিড

This stream auto-updates     

  1. Past hour
  2. EURUSD সিগন্যাল মার্কেটের ১.১৭৫০ স্টপ লস দেওয়া হয়েছে। বর্তমানে আমরা পরবর্তী সুযোগের অপেক্ষা করছি। ৬০ মিনিট (১ঘন্টার) চার্টের সিগনাল (পরবর্তী ৩ দিন) ট্রেন্ডের ধরণ : মার্কেট নিন্মমূখীভাবে শক্তিশালী। সাপোর্ট লেভেল : ১.১৭০০,১.১৬৭০,১.১৬২০ রেজিস্ট্যান্স লেভেল : ১.১৭৯০,১.১৮৩০,১.১৮৯০ ২৪০ মিনিট (৪ ঘন্টার ) চার্টের সিগনাল ( পরবর্তী ৩ সপ্তাহ ) মার্কেট ডাউনট্রেন্ডে রয়েছে। আমরা সেল পজিশন নেওয়ার জন্য কিছু সিগন্যালের অপেক্ষা করছি। পেয়ারটি ১.১৯২০ প্রাইস ভেঙ্গে উপরে উঠলে বিয়ারিশ ট্রেন্ড পরিবর্তন হতে পারে।সেক্ষেত্রে সেল বাই পজিশন নেওয়া যেতে পারে। ট্রেন্ডের ধরণ : মার্কেটের ঊর্ধ্বমূখী শিথিলতা। সাপোর্ট লেভেল : ১.১৬৯০,১.১৫৭০,১.১৩৬০ রেজিস্ট্যান্স লেভেল : ১.১৯২০,১.২০২০,১.২১৮০ সেল এন্ট্রি: ১.১৬৯০ স্টপ লস: ১.১৯২০ ট্রেডের সম্ভাবনা: মাঝারি টেক প্রফিট: ১.১৫৭০,১.১৩৬০ GBPUSD সিগন্যাল ৬০ মিনিট ( ১ঘন্টার ) চার্টের সিগনাল (পরবর্তী ৩ দিন ) মার্কেট ১.৩০৫০ সাপোর্ট লেভেলে টেস্টিং করছে। আমরা বাই পজিশন নেওয়ার জন্য কিছু সিগন্যালের অপেক্ষা করছি বা ১.৩১০৫ রেজিস্ট্যান্স লেভেলে ব্রেক হতে পারে। পরবর্তী গুরুত্বপূর্ণ সাপোর্ট লেভেল ১.৩০২০। ট্রেন্ডের ধরণ : মার্কেট ঊর্ধ্বমূখী শক্তিশালী। সাপোর্ট লেভেল : ১.৩০৫০,১.৩০২০,১.২৯৭০ রেজিস্ট্যান্স লেভেল : ১.৩১০৫,১.৩১৩০,১.৩১৭০ টেক প্রফিট: ১.৩১৩০,১.৩১৭০ ২৪০ মিনিট (৪ ঘন্টার ) চার্টের সিগনাল ( পরবর্তী ৩ সপ্তাহ ) মার্কেটের ১.৩১০০ বাই এন্ট্রি এবং ১.৩১০০ সাপোর্ট লেভেল দেওয়া হয়েছে।পেয়ারটির ১.২৯৮০ প্রাইস ভেঙ্গে নিচে নামলে বুলিশ ট্রেন্ড পরিবর্তন হতে পারে। সেক্ষেত্রে সেল পজিশন নেওয়া যেতে পারে। ট্রেন্ডের ধরণ: মার্কেট ঊর্ধ্বমূখী শক্তিশালী। সাপোর্ট লেভেল: ১.২৯৮০,১.২৮৮০,১.২৭৪০ রেজিস্ট্যান্স লেভেল: ১.৩১৯০,১.৩২৮০,১.৩৪৮০ বাই এন্ট্রি: ১.৩১০০ স্টপ লস: ১.২৯৮০ ট্রেডের সম্ভাবনা: হাই ট্রেড প্রফিট: ১.৩২৮০,১.৩৪৮০
  3. Today
  4. AUDUSD পেয়ারটি ০.৭১৮৬ প্রাইসে পৌঁছানোর পরবর্তীতে ০.৭১৭৫ এর কাছাকাছি ট্রেডিং করছে। কমার্জব্যাংকের টিম হেড এফআইসিসি প্রযুক্তিগত গবেষণায় কারেন জনস বলেন। ২০০ সপ্তাহের মুভিং অ্যাভারেজ অনুযায়ী পেয়ারটি ০.৭২৭৫ প্রাইসে পৌঁছানোর সম্ভাবনা রয়েছে। ৫৫ মাসের মুভিং অ্যাভারেজ অনুযায়ী পেযারটি ০.৭২৮৪ প্রাইসে যেতে পারে। অপরদিকে ১০ দিনের মুভিং অ্যাভারেজ অনুযায়ী পেয়ারটির বর্তমান সাপোর্ট লেভেল ০.৭১২৬। পেয়ারটির পরবর্তী সাপোর্ট হতে পারে ডিসেম্বর মাসের সর্বোচ্চ প্রাইস ০.৭০৩১।
  5. GBPCAD পেয়ারটি তিন দিনের মতো ডাউনট্রেন্ড অব্যাহত রেখেছে। সাপ্তাহিক চার্টে পেয়ারটির ডাউনট্রেন্ড পরিলক্ষিত হচ্ছে। যা সেলারদের সুযোগ বাড়িয়ে দিচ্ছে। GBPCAD পেয়ারটি সর্বনিন্ম ১.৭৪৩১ প্রাইসে এসেছিল। বর্তমানে পেয়ারটি ১.৭৪৭৫ প্রাইসের কাছাকাছি অবস্থান করছে। ৫০% ফিবোনাসি অনুযায়ী সেলারদের প্রথম চয়েজ ১.৭৩৫০।যা এ মাসের সর্বনিন্ম প্রাইস। পেয়ারটির পরবর্তী সাপোর্ট হতে পারে ১.৭৩০৪ এবং ৬১.৮% ফিবোনাসি অনুযায়ী পেয়ারটি পরবর্তীতে ১.৭২৬০ প্রাইসে যেতে পারে। অপরদিকে পেয়ারটির বর্তমান রেজিস্ট্যান্স লেভেল ১.৭৪৭৫।পরবর্তী রেজিস্ট্যান্স হতে পারে ১.৭৫।পেয়ারটি ১.৭৫৯০ প্রাইসে পৌঁছালে মাসের সর্বোচ্চ প্রাইস হবে।পেয়ারটির পরবর্তী রেজিস্ট্যান্স হবে ৩১ জুলাইয়ের সর্বোচ্চ প্রাইস ১.৭৬৭৬। GBPCAD চার ঘন্টার চার্ট
  6. সপ্তাহের প্রথমদিন অর্থাৎ সোমবার EURUSD পেয়ারটির প্রাইস কমেছিল।তবে আজ পেয়ারটির প্রাইস কমবে কিনা সেটা দেখার বিষয়। আজকের সেশনে পেয়ারটি ১.১৭৩৪ প্রাইসে ওপেন হয়ে বর্তমানে ১.১৭৪৯ প্রাইসে অবস্থান করছে।জার্মান ইকোনমিক সেন্টিমেন্ট রিপোর্টকে কেন্দ্র করে পেয়ারটির প্রাইস কমার সম্ভাবনা রয়েছে।বিকাল ০৩:০০ দিকে ইকোনমিক সেন্টিমেন্ট রিপোর্ট প্রকাশ করা হবে। জুলাইয়ে জার্মান ইকোনমিক সেন্টিমেন্ট ৫৯.৩ পয়েন্ট এসেছিল। প্রত্যাশা করা হচ্ছে, আগস্টে গত রিপোর্টের থেকে কিছুটা কমে ৫৮.০ পয়েন্ট আসতে পারে।ইকোনমিক সেন্টিমেন্ট প্রত্যাশার নিচে আসলে পেয়ারটির প্রাইস কমতে পারে। ইউরো/ডলারের ক্ষেত্রে ৩ আগস্টের সর্বনিন্ম প্রাইস ১.১৬৯৬ সাপোর্ট হিসেবে কাজ করতে পারে। পেয়ারটি ১.১৬৯৬ প্রাইস অতিক্রম করলে ডাউনট্রেন্ড শক্তিশালী হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে।
  7. Yesterday
  8. ব্যাংক থেকে সরাসরি PERFECT MONEY/SKRILL এ ডিপোজিট করা যাবে কি?
  9. EUR/JPY এর ইলিয়ট ওয়েভ বিশ্লেষণ (১০ আগস্ট, ২০২০) EUR/JPY পেয়ার বর্তমানে ওয়েভ iv এর কারেকশন তৈরি করছে। পরবর্তী মূল্য প্রবণতা 127.25 লেভেল এবং 129.26 লেভেলের দিকে চলমান থাকার আগে তা 123.78 পর্যন্ত ফিরে আসতে পারে। স্বল্পমেয়াদে সাপোর্ট লেভেলের অবস্থান 124.21 এবং 123.78, যা খুব সম্ভবত নিম্নমুখী প্রবণতাকে প্রতিহত করবে এবং ঊর্ধ্বমুখী প্রবণতাকে সহায়তা করবে। R3: 125.82 R2: 125.59 R1: 125.43 পিভট: 125.01 S1: 124.63 S2: 124.21 S3: 123.78 ট্রেডিংয়ের পরামর্শ: আমরা 123.85 লেভেলে ইউরো ক্রয় করব, অথবা 125.41 লেভেল ভেদ করার পর ক্রয় করব। *মার্কেট বিশ্লেষণ ট্রেডিং সম্পর্কে আপনার সচেতনতা বৃদ্ধি করবে, কিন্তু আপনাকে ট্রেডিং সম্পর্কিত নির্দেশ প্রদান করবে না। বিভিন্ন পেয়ারের ফরেক্স আনাল্যসিসগুলো পেতে [URL=" http://bit.ly/37CKtwI"] এই লিঙ্কটি [/URL] ভিজিট করুন
  10. ইউরোজোন সেন্টিক্স ইনভেস্টর সেন্টিমেন্ট ইন্ডেক্সের প্রকাশের পর পরিবর্তন ইউরোর আংশিক পরিবর্তন আজ সোমবার ET সময় ভোর 4:30 am এ ইউরোজোন সেন্টিক্স ইনভেস্টর সেন্টিমেন্ট ইন্ডেক্সের এর ডাটা প্রকাশ করা হয়েছে। এই ডাটা প্রকাশের পরে, ইউরো তার প্রধান প্রতিদ্বন্দ্বী মুদ্রাগুলোর বিপরীতে আংশিক পরিবর্তিত হয়েছে। ET সময় ভোর 4:32 -তে ইউরো মূল্য ইয়েনের বিপরীতে 124.69 ছিল, ডলারের এর বিপরীতে 1.1766, ফ্রাঙ্কের বিপরীতে 1.0767 এবং পাউন্ডের বিপরীতে ছিল 0.9013 । আরো ফরেক্স সংবাদঃ
  11. Date : 10 August 2020. Events to Look Out for This Week.As the month of August began,uncertainties both fresh and familiar keep challenging the markets, driving volatility in the stock market and pushing bond rates to record lows. The worries over the second wave of the viral pandemic, US-China frictions, the government’s inability to pass a new US stimulus bill and the whatever-it-takes policy commitments from the core central banks all expected to hold in the week ahead as well.Have a look at the most important events of the coming days in our usual weekly publication. Monday – 10 August 2020 Consumer Price Index (CNY, GMT 01:30) – The July Chinese CPI is expected to have improved on a monthly basis, with higher outcome at 0.2% m/m from -0.1% m/m Tuesday – 11 August 2020 Average Earnings (GBP, GMT 08:30) – Average Earnings excluding bonus are expected to have grown by 0.4% in June from 0.7%. The ILO unemployment rate is expected to be unchanged at 3.9%. Economic Sentiment (EUR, GMT 09:00) – German August ZEW economic sentiment is seen to have inclined at 62.4 compared to 59.3 in July. Producer Price Index (USD, GMT 12:30) – The headline CPI for PPI in July is expected with a 0.4% gain with a 0.1% core price increase. As expected readings would result in a rise for the y/y headline PPI metric to -0.7% from -0.8% in June. The y/y core reading is assumed to remain in the 0.2%-0.5% area over the near future, with the downward hit from reduced aggregate demand proving greater than the boost for prices from supply disruptions, though supply constraints for some sectors should prove increasingly important as we pass through Q3. Wednesday – 12 August 2020 Interest Rate Decision & Policy Report (NZD, GMT 02:00) – The Reserve Bank of New Zealand (RBNZ) is widely expected to keep the OCR (Official Cash Rate) at the current record low 0.25%. The OCR is the means by which the RBNZ manages a dovish monetary policy for the New Zealand economy, by lending overnight cash at 25 basis points above the OCR, and receiving deposits and paying interest at 25 basis points below the OCR. The bank expected to expand QE, when the Bank’s bimonthly monetary policy statement and press conference are also scheduled, since last time it stressed a willingness to take further stimulus measures if necessary while noting persisting downside risks to the economy, adding that currency strength remains a negative for NZ exporters. Gross Domestic Product (GBP, GMT 06:00) – GDP is the economy’s most important figure. The preliminary Q2 GDP is expected to slightly improved at -1.8% q/q however it remains contracted in a quarterly and yearly basis. Consumer Price Index (USD, GMT 12:30) – The headline CPI for July is expected at a 0.3% July and with a 0.1% core price rate, following June figures of 0.6% for the headline and 0.2% for the core. The headline will be boosted by an estimated 5% July increase for CPI gasoline prices. As-expected July figures would result in a headline y/y increase of 0.7%, up from 0.6% in June. Thursday – 13 August 2020 Employment Data (AUD, GMT 01:30) – Both the unemployment rate and the employment change are expected to have grown in July, at 7.8% m/m and 394.2K respectively. Harmonized Index of Consumer Prices (EUR, GMT 06:00) – The German HICP inflation for July is anticipated flat. Friday – 14 August 2020 Retail Sales (CNY, GMT 02:00) – Following the -1.8% m/m contraction in China retail sales in June, they are expected to rise slightly by 0.3% in July. Gross Domestic Product (EUR, GMT 09:00) – The preliminary Q2 GDP s.a. is expected to remain contracted at -15.0%y/y and -12.1% q/, with national GDP rates varying pretty much along the lines of virus developments and depending and the extend of lockdown measures. The key question for the future is when the initial rebound will be, but if that can be sustained and broadened into a lasting recovery even when governments and ECB start to reign in their very generous support. The agreement on an EU wide stimulus package has helped to bolster confidence in the project, but it remains to be seen whether the package really is sufficient to strengthen long term growth in the Eurozone. Retail Sales (USD, GMT 12:30) – July increases of 1.0% for headline retail sales is expected and 0.8% for the ex-auto figure, following June increases of 7.5% for the headline and 7.3% ex-autos. We expect a 5% increase for the CPI gasoline index, and rising sales volume as well should allow a 5% service station sales rebound as well. Real consumer spending is expected to contract at a rate of -33.2% in Q2 before an assumed 33% bounce in Q3. Michigan Consumer Sentiment Index (USD, GMT 14:00) – The August preliminary Michigan sentiment reading is forecast at 79.0, from 72.5 in the final July reading. Always trade with strict risk management. Your capital is the single most important aspect of your trading business.Please note that times displayed based on local time zone and are from time of writing this report.Click HERE to access the full HotForex Economic calendar.Want to learn to trade and analyse the markets? Join our webinars and get analysis and trading ideas combined with better understanding on how markets work. Click HERE to register for FREE!Click HERE to READ more Market news. Andria Pichidi Market Analyst HotForex Disclaimer: This material is provided as a general marketing communication for information purposes only and does not constitute an independent investment research. Nothing in this communication contains, or should be considered as containing, an investment advice or an investment recommendation or a solicitation for the purpose of buying or selling of any financial instrument. All information provided is gathered from reputable sources and any information containing an indication of past performance is not a guarantee or reliable indicator of future performance. Users acknowledge that any investment in FX and CFDs products is characterized by a certain degree of uncertainty and that any investment of this nature involves a high level of risk for which the users are solely responsible and liable. We assume no liability for any loss arising from any investment made based on the information provided in this communication. This communication must not be reproduced or further distributed without our prior written permission.
  12. EURUSD সিগন্যাল ৬০ মিনিট (১ঘন্টার) চার্টের সিগনাল (পরবর্তী ৩ দিন) মার্কেট ১.১৮১০ রেজিস্ট্যান্স লেভেলে টেস্টিং করছে। আমরা সেল পজিশন নেওয়ার জন্য কিছু সিগন্যালের অপেক্ষা করছি বা ১.১৭৫০ সাপোর্ট লেভেলে ব্রেক হতে পারে। পরবর্তী গুরুত্বপূর্ণ রেজিস্ট্যান্স লেভেল ১.১৮৪০। ট্রেন্ডের ধরণ : মার্কেট নিন্মমূখীভাবে শক্তিশালী। সাপোর্ট লেভেল : ১.১৭৫০,১.১৭২৫,১.১৬৮০ রেজিস্ট্যান্স লেভেল : ১.১৮১০,১.১৮৪০,১.১৯০০ টেক প্রফিট: ১.১৭২৫,১.১৬৮০ ২৪০ মিনিট (৪ ঘন্টার ) চার্টের সিগনাল ( পরবর্তী ৩ সপ্তাহ ) ১.১৬৯০ সাপোর্ট লেভেলে সেল পজিশন দেওয়া হয়েছে। পেয়ারটি ১.১৯২০ প্রাইসের উপরে উঠলে বিয়ারিশ ট্রেন্ড পরিবর্তন হতে পারে। সেক্ষত্রে বাই পজিশন নেওয়া যেতে পারে। ট্রেন্ডের ধরণ : মার্কেট ঊর্ধ্বমূখী শক্তিশালী। সাপোর্ট লেভেল : ১.১৬৯০,১.১৫৭০,১.১৩৬০ রেজিস্ট্যান্স লেভেল : ১.১৯২০,১.২০২০,১.২১৮০ সেল এন্ট্রি: ১.১৬৯০ স্টপ লস: ১.১৯২০ ট্রেডের সম্ভাবনা: মাঝারি টেক প্রফিট: ১.১৫৭০,১.১৩৬০ GBPUSD সিগন্যাল ৬০ মিনিট ( ১ঘন্টার ) চার্টের সিগনাল (পরবর্তী ৩ দিন ) পেয়ারটি ১.৩০৩০ প্রাইসের দিকে একটি নিন্মমূখী প্রাইস রিট্রেসমেন্টের সম্ভাবনা রয়েছে। সেক্ষেত্রে বাই পজিশন নেওয়া যেতে পারে। ট্রেন্ডের ধরণ : মার্কেট ঊর্ধ্বমূখী শক্তিশালী। সাপোর্ট লেভেল : ১.৩০৯০,১.২৯৯০,১.২৯৩০ রেজিস্ট্যান্স লেভেল : ১.৩১১০,১.৩১৫০,১.৩২১০ ২৪০ মিনিট (৪ ঘন্টার ) চার্টের সিগনাল ( পরবর্তী ৩ সপ্তাহ ) মার্কেটের ১.৩১০০ বাই এন্ট্রি এবং ১.৩১০০ সাপোর্ট লেভেল দেওয়া হয়েছে।পেয়ারটির ১.২৯৮০ প্রাইস ভেঙ্গে নিচে নামলে বুলিশ ট্রেন্ড পরিবর্তন হতে পারে। সেক্ষেত্রে সেল পজিশন নেওয়া যেতে পারে। ট্রেন্ডের ধরণ: মার্কেট ঊর্ধ্বমূখী শক্তিশালী। সাপোর্ট লেভেল: ১.২৯৮০,১.২৮৮০,১.২৭৪০ রেজিস্ট্যান্স লেভেল: ১.৩১৯০,১.৩২৮০,১.৩৪৮০ বাই এন্ট্রি: ১.৩১০০ স্টপ লস: ১.২৯৮০ ট্রেডের সম্ভাবনা: হাই ট্রেড প্রফিট: ১.৩২৮০,১.৩৪৮০
  13. মার্কিন ডলারের বিপরীতে ভারতীয় রুপী প্রায় ৪ সপ্তাহের সর্বনিন্ম দামের কাছাকাছি! ভারতীয় রুপি আজ সোমবার সকালের ট্রেডিং সেশনে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে ডলারের বিপরীতে দর হারিয়েছে, যদিও তার আঞ্চলিক শেয়ার মার্কেটে, আন্তর্জাতিক বাজারে ইতিবাচক থাকার ইঙ্গিত পাওয়া যায়। বেঞ্চমার্ক এসএন্ডপি বিএসই সেন্সসেক্স ৩৫১ পয়েন্ট বা ০.৯২ শতাংশ বেড়ে ৩৮,৯৯১ এ উন্নীত হয়েছে, এনএসইয়ের বিস্তৃত নিফটি সূচক ১১৩.০৫ পয়েন্ট বা ১.০১ শতাংশ বেড়ে ১১,৩২৭ এ দাঁড়িয়েছে। প্রারম্ভিক ডিলগুলিতে দেখা গেছে, ভারতীয় রুপিতে গ্রিনব্যাকের বিপরীতে .৪.৪৪-র সমাদৃত হয়েছে। গতকালের পর থেকে এই পেয়ারটির দাম ছিল ৭৪.৮৮। যদি আবার ওঠে যায় তবে রূপী প্রায় ৭২.০০ এর রেজিস্টেন্স লেভেলটিকে চ্যালেঞ্জ জানাতে পারে। বিস্তারিত ইকোনমিক নিউজগুলো পেতে ভিজিট করুন: https://cutt.ly/bsK5l6Z *মার্কেট এর নিউজ ট্রেডিং সম্পর্কে আপনার সচেতনতা বৃদ্ধি করবে, কিন্তু আপনাকে ট্রেডিং সম্পর্কিত নির্দেশ প্রদান করবে না।
  14. GBP/JPY এর ইলিয়ট ওয়েভ বিশ্লেষণ (১০ আগস্ট, ২০২০) বিশ্লেষণটি করেছেন ইন্সটা ফরেক্স টিম এর বিশেষজ্ঞ টরবেন মেল্টেড Torben Melsted আমরা আশা করছি GBP/JPY পেয়ার 140.35 লেভেল পর্যন্ত এসে নীল রঙের ওয়েভ iii সম্পন্ন করবে এবং নীল ওয়েভ iv আকারে ছোট কারেকশন শুরু হবে। যাহোক, 31 জুলাই শুরু হওয়া সাইডওয়েস কনসোলিডেশন চলমান রয়েছে। আশা করা যায় GBP/JPY পেয়ার 137.72 - 139.12 রেঞ্জ ভেদ করে ঊর্ধ্বমুখী হয়ে চলমান থাকবে। এক্ষেত্রে প্রবণতা 140.35 লেভেল স্পর্শ করতে পারে। উক্ত লেভেল স্পর্শ করার পর আমরা নীল তরঙ্গ iv হ্রাস প্রত্যাশা করতে পারি যা 137.72 - 137.98 অঞ্চলে ফিরে আসবে এবং পুনরায় ঊর্ধ্বমুখী তরঙ্গ 140.35 হয়ে 144.29 লেভেলের দিকে চলমান থাকবে। R3: 140.35 R2: 139.80 R1: 139.20 পিভট: 138.75 S1: 138.34 S2: 137.98 S3: 137.72 ট্রেডিংয়ের পরামর্শ: আমরা 135.48 লেভেল থেকে ইউরোতে লং পজিশনে রয়েছি এবং 139.12 লেভেল ভেদ করার পর আমরা স্টপ লেভেল আরও উপরের দিকে 137.70 লেভেলে নির্ধারণ করব। আমরা 140.25 লেভেলে 50% মুনাফা গ্রহণ করব। *মার্কেট বিশ্লেষণ ট্রেডিং সম্পর্কে আপনার সচেতনতা বৃদ্ধি করবে, কিন্তু আপনাকে ট্রেডিং সম্পর্কিত নির্দেশ প্রদান করবে না। ফরেক্স বিশ্লেষন বিস্তারিত দেখুন: https://bit.ly/IFX_forex_analysis_BD
  15. গত সপ্তাহে পেয়ারটির প্রাইস সামান্য বেড়েছিল।পেয়ারটিকে প্রভাবিত করার মতো এ সপ্তাহে ছয়টি ইভেন্ট রয়েছে। এখানে এ সপ্তাহের মার্কেট আউটলুক এবং AUDUSD টেকনিক্যাল অ্যানালাইসিস আলোচনা করা হলো। অস্টেলিয়ার মেনুফেকচারিং পিএমআই ৫১.৫ থেকে বেড়ে ৫৩.৫ পয়েন্ট এসেছে। বানিজ্য উদ্বৃত্তি ৮.০৩ থেকে বেড়ে ৮.২০ বিলিয়ন এসেছে। রিজার্ভ ব্যাংক অব অস্টেলিয়া ইন্টারেস্ট রেট ০.২৫% নির্ধারণ করেছেন। মার্চের পরবর্তী এর কোন পরিবর্তন হয়নি। মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের মেনুফেকচারিং পিএমআই প্রত্যাশিত ৫৩.৬ থেকে বেড়ে ৫৪.২ পয়েন্ট এসেছে।ননফার্ম পেরোলস রিপোর্ট বেশ ভাল প্রত্যাশার তুলনায় ছিল।ননফার্ম পেরোলস ৪.৮ মিলিয়ন থেকে কমে ১.৭৬ মিলিয়ন এসেছে।যা প্রত্যাশিত ১.৫৩ মিলিয়নের উপরে ছিল।বেতম বৃদ্ধি ০.৫% কমার পরিবর্তে ০.২% বেড়েছে। যদিও গত দুমাস ক্রমাগত বেতন কমেছিল। ১.NAB Business Confidence সোমবার,সকাল ০৭:৩০। মে মাসে অস্টেলিয়ার জাতীয় ব্যাংকের বিজনেস কনফিডেন্স -২০ পয়েন্ট কমলেও জুলাইয়ে ১ পয়েন্ট বেড়েছে। প্রত্যাশা করা হচ্ছে, আগস্টেও এ ধরণের আরেকটি রিবাউন্ড দেখা যেতে পারে। ২.Westpac Consumer Sentiment বুধবার,ভোর ০৪:৩০। সেক্টরটি গত দুরিপোর্টে ভাল করলেও জুনে ৬.১% কমেছে। বর্তমান রিলিজে আমরা আরেকটি রিবাউন্ড দেখতে পারবো কিনা সেটা দেখার বিষয়। ৩.Wage Price Index বুধবার, ০৭:৩০।২০ সালের ১ম প্রান্তীকসহ মোর্ট তৃতীয় কোয়াটারের মতো ‍বেতন(ওয়েজ) ০.৫% অপরিবর্তনীয় ছিল। প্রত্যাশা করা হচ্ছে, দ্বিতীয় কোয়াটারে ওয়েজ প্রাইস ০.৩% আসতে পারে। ৪.MI Inflation Expectations বৃহস্পতিবার,সকাল ০৭:০০।জুনে মুদ্রাস্ফীতি ৩.৩% থেকে কমে ৩.২% এসেছিল।২০১৯ সালের জুলাইয়ের পরবর্তীতে এটা সর্বনিন্ম প্রাইস ছিল। বর্তমানে আমরা জুলাই মাসের ডাটার অপেক্ষা করছি। ৫.Employment Report বৃহস্পতিবার,সকাল ০৭:৩০। জুনে অস্টেলিয়ার জব সেক্টর রিবাউন্ড করে ২ লক্ষ ১০ হাজারের মতো এসেছিল। প্রত্যাশা করা হচ্ছে,জুলাইয়ে ৩০ হাজারের মতো বাড়তে পারে। জুনে বেকারত্বের হার ৭.১% থেকে বেড়ে ৭.৪% এসেছিল। প্রত্যাশা করা হচ্ছে, জুলাইয়ে ৭.৮% বাড়তে পারে। ৬.Phillip Lowe speaks বৃহস্পতিবার,রাত ০৮:৩০। ফিলিপ লো ইকোনমি সম্পর্কে বক্তব্য রাখবে যা অস্টেলিয়ান ডলারের জন্য বেশ গুরুত্বপূর্ণ। AUDUSD প্রতিদিনের সাপোর্ট এবং রেজিস্ট্যান্স লাইনগুলো দেওয়া হলো AUDUSD টেকনিক্যাল অ্যানালাইসিস আমরা ০.৭৫১৩ রেজিস্ট্যান্স থেকে শুরু করছি। ২০১৮ সালের জুনে এটা গুরুত্বপূর্ণ একটি রেজিস্ট্যান্স লেভেল ছিল।পরবর্তীতে ০.৭৪ রাউন্ড নাম্বার হিসেবে কাজ করেছিল।২০১৮ সালের ডিসেম্বরে ০.৭৩১৩ গুরুত্বপূর্ণ সাপোর্ট ছিল।পেয়ারটির পরবর্তী রেজিস্ট্যান্স ০.৭২৫০।পেয়ারটির বর্তমান রেজিস্ট্যান্স লেভেল ০.৭১৬৫। পেয়ারটির বর্তমান সাপোর্ট লেভেল ০.৭১৬৫। পরবর্তীতে ০.৭০৫৬ সাপোর্ট হিসেবে কাজ করেছিল।পেয়ারটির পরবর্তী সাপোর্ট হতে পারে ০.৬৮২৫। শেষ কথা ফরেক্স বিশেষজ্ঞদের মতে, এ সপ্তাহে AUDUSD পেয়ারটি নিরপেক্ষ অবস্থানে থাকতে পারে। বেশ কয়েক সপ্তাহ পেয়ারটি আপট্রেন্ডে থাকলেও বিশেষজ্ঞগণ প্রত্যাশা করছেন, এ সপ্তাহে পেয়ারটি নিরপেক্ষ অবস্থানে থাকতে পারে।
  16. গত দুসপ্তাহ পেয়ারটির প্রাইস সামান্য কমেছিল।পেয়ারটিকে প্রভাবিত করার মতো এ সপ্তাহে একটি ইভেন্ট রয়েছে। এখানে এ সপ্তাহের মার্কেট আউটলুক এবং USDCAD টেকনিক্যাল অ্যানালাইসিস আলোচনা করা হলো। জুলাই মাসে কানাডিয়ান মেনুফেকচারিং পিএমআই বেড়ে ৫২.৯ পয়েন্ট এসেছিল।এপ্রিলের আগের সেক্টরটি ৩৩.০ পয়েন্টের কাছাকাছি ছিল। কানাডার ইকোনমিতে ৪ লক্ষ ১৮ হাজারের বেশি জব যোগ হয়েছে। যা প্রত্যাশিত ৩ লক্ষ ৯৫ হাজারের বেশি ছিল।বেকারত্বের হার ১২.৩% থেকে কমে ১০.৯% এসেছে। মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের মেনুফেকচারিং পিএমআই প্রত্যাশিত ৫৩.৬ থেকে বেড়ে ৫৪.২ পয়েন্ট এসেছে।ননফার্ম পেরোলস রিপোর্ট বেশ ভাল প্রত্যাশার তুলনায় ছিল।ননফার্ম পেরোলস ৪.৮ মিলিয়ন থেকে কমে ১.৭৬ মিলিয়ন এসেছে।যা প্রত্যাশিত ১.৫৩ মিলিয়নের উপরে ছিল।বেতম বৃদ্ধি ০.৫% কমার পরিবর্তে ০.২% বেড়েছে। যদিও গত দুমাস ক্রমাগত বেতন কমেছিল। ১.Housing Starts সোমবার,সন্ধ্যা ০৬:১৫। গত চার মাসে প্রথমবারের মতো জুনে বাড়ি নির্মাণ ২ লক্ষের মতো শুরু হয়েছে।প্রত্যাশা করা হচ্ছে,জুলাইয়েও একই রিপোর্ট আসতে পারে। USDCAD প্রতিদিনের সাপোর্ট এবং রেজিস্ট্যান্স লাইনগুলো দেওয়া হলো USDCAD টেকনিক্যাল অ্যানালাইসিস আমরা ১.৩৭৫৭ রেজিস্ট্যান্স লেভেল থেকে শুরু করছি। পরবর্তী রেজিস্ট্যান্স লেভেল ১.৩৬৬১। জুলাইয়ের মাঝামাঝিতে ১.৩৫৫০ গুরুত্বপূর্ণ রেজিস্ট্যান্স লেভেল ছিল।সপ্তাহের শেষের দিকে পেয়ারটি ১.৩৪২০ রেজিস্টেন্স লেভেল অতিক্রম করেছিল। পেয়ারটির বর্তমান সাপোর্ট লেভেল ১.৩৩৩০।পরবর্তী সাপোর্ট লেভেল হতে পারে ১.৩২৬৫। এ সপ্তাহের পেয়ারটির সর্বশেষ সাপোর্ট লেভেল হতে পারে ১.৩০৭৮। শেষ কথা ফরেক্স বিশেষজ্ঞদের মতে, এ সপ্তাহে পেয়ারটি নিরপেক্ষ অবস্থানে থাকতে পারে। কানাডিয়ান ডলার মার্কিন ডলারের বিপরীতে ক্রমাগত ভাল করছে।তবে এ সপ্তাহে প্রত্যাশা করা হচ্ছে মার্কিন ডলার রিকভার করতে পারে। সুতরাং কারেন্সি দুটো প্রতিযোগী মনোভাবে থাকতে পারে।
  17. দ্বিতীয় সপ্তাহের মতো USDJPY পেয়ারটির মুভমেন্টে শিথিলতা লক্ষ্য করা যাচ্ছে।পেয়ারটিকে প্রভাবিত করার মতো এ সপ্তাহে জাপানের কোন ইভেন্ট না থাকলেও মার্কিন ইভেন্টগুলো পেয়ারটিকে প্রভাবিত করতে পারে। জাপানের জিডিপিতে তৃতীয়বারের মতো হ্রাস পরিলক্ষিত হচ্ছে,দ্বিতীয় প্রান্তীকে জিডিপি ০.৬% কমেছিল। টোকিও কোর সিপিআই ০.২% থেকে বেড়ে ০.৪% এসেছে। অপরদিকে সিপিআই ডাউনট্রেন্ডে রয়েছে। যা ১.৭% কমেছে। পারিবারিক ব্যয় ১.২% কমেছে। USDJPY টেকনিক্যাল অ্যানালাইসিস আমরা ১০৯.৭৩ রেজিস্ট্যান্স থেকে শুরু করছি। জুনের শুরুর দিকে ১০৮.৩০ রেজিস্ট্যান্স হিসেবে কাজ করেছিল।পরবর্তী রেজিস্ট্যান্স লেভেল ছিল ১০৭.২২।পেয়ারটির বর্তমান রেজিস্ট্যান্স ১০৬.০৫। পেয়ারটির বর্তমান সাপোর্ট লেভেল ১০৫.১৩। পরবর্তী সাপোর্ট লেভেল ১০৪.২৯।মার্চের শুরুর দিকে ১০৩.৫২ সাপোর্ট হিসেবে কাজ করেছিল।পেয়ারটির সর্বশেষ সাপোর্ট লেভেল ১০২.২৭। USDJPY প্রতিদিনের সাপোর্ট এবং রেজিস্ট্যান্স লাইনগুলো দেওয়া হলো শেষ কথা বিশেষজ্ঞদের মতে, এ সপ্তাহে পেয়ারটি নিরপেক্ষ অবস্থানে থাকতে পারে। মার্কিন ডলার দুসপ্তাহ আপট্রেন্ডে আসার চেষ্টা করছে। প্রত্যাশা করা হচ্ছে, মার্কিন এমপ্লোয়মেন্ট এবং মেনুফেকচারিং রিপোর্টকে কেন্দ্র করে মার্কিন ডলারের প্রাইস বাড়ার সম্ভাবনা রয়েছে।
  18. গত সপ্তাহে GBPUSD পেয়ারটির প্রাইস সামন্য কমেছিল।ব্রিটিশ জিডিপি এবং এমপ্লোয়মেন্ট ডাটাসহ আরও তিনটি ইভেন্ট এ সপ্তাহের পেয়ারটিকে প্রভাবিত করতে পারে। এখানে এ সপ্তাহের মার্কেট আউটলুক এবং GBPUSD টেকনিক্যাল অ্যানালাইসিস আলোচনা করা হলো। গত সপ্তাহে প্রকাশিত ব্রিটিশ মেনুফেকচারিং পিএমআই প্রত্যাশা অনুযায়ী ৫৩.৬ পয়েন্ট এসেছিল এবং সার্ভিস পিএমআই দ্বিতীয়বারের মতো ৫৬.৫ পয়েন্ট এসেছিল।ব্যাংক অব ইংল্যান্ড ইন্টারেস্ট রেট ০.১০ শতাংশে অপরিবর্তনীয় রেখেছে। কন্সট্রাকশন পিএমআই ৫৫.৩ থেকে বেড়ে ৫৮.১ পয়েন্ট এসেছে। মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের মেনুফেকচারিং পিএমআই প্রত্যাশিত ৫৩.৬ থেকে বেড়ে ৫৪.২ পয়েন্ট এসেছে।ননফার্ম পেরোলস রিপোর্ট বেশ ভাল প্রত্যাশার তুলনায় ছিল।ননফার্ম পেরোলস ৪.৮ মিলিয়ন থেকে কমে ১.৭৬ মিলিয়ন এসেছে।যা প্রত্যাশিত ১.৫৩ মিলিয়নের উপরে ছিল।বেতম বৃদ্ধি ০.৫% কমার পরিবর্তে ০.২% বেড়েছে। যদিও গত দুমাস ক্রমাগত বেতন কমেছিল। ১.BRC Retail Sales Monitor মোঙ্গলবার, ভোর ০৪:০১।জুন মাসের সাথে আরও দুমাস সেক্টরটি আপট্রেন্ডে ছিল।জুন মাসে রিটেইল সেলস ১০.৯% বেড়েছিল। প্রত্যাশা করা হচ্ছে, জুলাইয়ে সেক্টরটি আপট্রেন্ডে থাকবে। ২.Employment Report মঙ্গলবার ,দুপুর ১২:০০। মে মাসে বেকারত্ব ৫ লক্ষ ২৮ হাজার আসলেও জুনে কমে ২৮ হাজার এসেছে। বর্তমানে আমরা জুলায়ের ডাটার অপেক্ষা করছি। মে মাসে বেতন (ওয়েজ) ০.৩% কমেছিল।প্রত্যাশা করা হচ্ছে, এ মাসেও সেক্টরটি ডাউনট্রেন্ডে থাকতে পারে। ৩.GDP বুধবার,দুপুর ১২:০০।কোভিড-১৯ এর কারণে ১ম প্রান্তীকে জিডিপি ২.০% কমেছিল।প্রত্যাশা করা হচ্ছে,২য় প্রান্তীকে জিডিপি ২০.৫ কমতে পারে।মে মাসে ডিজিডি ১.৮% বেড়েছিল। যা প্রত্যাশিত ৫.৫% উপরে ছিল।প্রত্যাশা করা হচ্ছে, জুনের রিপোর্টে জিডিপি বেড়ে ৮.১% আসতে পারে। ৪.Manufacturing Production বুধবার,দুপুর ১২:০০। মে মাসে মেনুফেকচারিং প্রডাকশন ৮.৪% বেড়েছিল। যদিও এপ্রিলে ২৪.৩% কমেছিল।প্রত্যাশা করা হচ্ছে, জুনে সেক্টরটি বৃদ্ধি পেয়ে ১০.০% আসতে পারে। ৫.RICS House Price Balance বৃহস্পতিবার,ভোর ০৪:০১। প্রত্যাশা করা হচ্ছে, এ সপ্তাহে হাউজিং সেক্টরের প্রাইস কমার সম্ভাবনা রয়েছে। GBPUSD প্রতিদিনের সাপোর্ট এবং রেজিস্ট্যান্স লাইনগুলো দেওয়া হলো GBPUSD টেকনিক্যাল অ্যানালাইসিস ২০১৯ সালের ডিসেম্বরে ১.৩৩১২ রেজিস্ট্যান্স হিসেবে কাজ করেছিল।পরবর্তী রেজিস্ট্যান্স ছিল ১.৩২০৭। পেয়ারটি পরবর্তীতে ১.৩২০৭ রেজিস্ট্যান্স লেভেলে যেতে পারে। পেয়ারটির বর্তমান রেজিস্ট্যান্স লেভেল ১.৩১৫৪। পেয়ারটির বর্তমান সাপোর্ট লেভেল ১.৩০৪৯।পরবর্তী সাপোর্ট হতে পারে ১.২৮৯১ এবং ১.২৭১৮। এ সপ্তাহে পেয়ারটির সর্বশেষ সাপোর্ট হতে পারে ১.২৬১৬। শেষ কথা ফরেক্স বিশেষজ্ঞদের মতে ,এ সপ্তাহে GBPUSD পেয়ারটির প্রাইস কমার সম্ভাবনা রয়েছে। যুক্তরাজ্য এবং যুক্তরাষ্ট্র করোনাভাইরাসের প্রভাব থেকে ধীরে ধীরে মুক্ত হতে শুরু করেছে। অ্যানালাইসিস্টগণ ধারণা করছেন, ২য় প্রান্তীকে ব্রিটিশ জিডিপি ২০% কমতে পারে। যা পাউন্ডের উপর নেতিবাচক প্রভাব ফেলতে পারে।
  19. তিন সপ্তাহ ধারাবাহিকভাবে EURUSD পেয়ারটির প্রাইস বেশ ভালভাবেই বেড়েছিল।তবে গত সপ্তাহে পেয়ারটির মুভমেন্ট সমান্য ছিল।পেয়ারটিকে প্রভাবিত করার মতো এ সপ্তাহে পাঁচটি ইভেন্ট রয়েছে। এখানে এ সপ্তাহের মার্কেট আউটলুক এবং EURUSD টেকনিক্যাল অ্যানালাইসিস আলোচনা করা হলো। জুলাই মাসে ইউরোজোন মেনুফেকচারিং পিএমআই প্রত্যাশা অনুযায়ী ৫০ পয়েন্টের উপরে এসেছে। জার্মান,ইউরোজোন এবং স্পেন মেনুফেকচারিং পিএমআই যথাক্রমে ৫১.০,৫১.৮ এবং ৫৩.৫ পয়েন্ট এসেছে।জার্মান এবং ইউরোজোন সার্ভিস পিএমআই জুনের তুলনায় কিছুটা ডাউনে ছিল।জার্মান সার্ভিস পিএমআই ৫৬.৭ থেকে ৫৫.৬ এবং ইউরোজোন পিএমআই ৫৪.৭ থেকে ৫৫.১ পয়েন্ট এসেছে।তবে ফ্রান্স পিএমআই গতবারের থেকে ভাল এসেছে। যা ৫৭.৩ পয়েন্ট ছিল।জার্মান ফ্যাক্টরি অর্ডার ২৭.৯% বেড়েছে,যা প্রত্যাশিত ১০.৩% তুলানায় বেশ ভাল ছিল।ইন্ডাস্ট্রীয়াল প্রডাকশন ৭.৮% থেকে বেড়ে ৮.৯% এসেছে। মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের মেনুফেকচারিং পিএমআই প্রত্যাশিত ৫৩.৬ থেকে বেড়ে ৫৪.২ পয়েন্ট এসেছে।ননফার্ম পেরোলস রিপোর্ট বেশ ভাল প্রত্যাশার তুলনায় ছিল।ননফার্ম পেরোলস ৪.৮ মিলিয়ন থেকে কমে ১.৭৬ মিলিয়ন এসেছে।যা প্রত্যাশিত ১.৫৩ মিলিয়নের উপরে ছিল।বেতম বৃদ্ধি ০.৫% কমার পরিবর্তে ০.২% বেড়েছে। যদিও গত দুমাস ক্রমাগত বেতন কমেছিল। ১.Sentix Investor Confidence সোমবার,দুপুর ০২:৩০।প্রত্যাশা করা হচ্ছে, ইউরোজোন ইনভেস্টর কনফিডেন্স -১৮.২ থেকে কমে -১৫.০ পয়েন্ট আসতে পারে। ২.German ZEW Economic Sentiment মঙ্গলবার,বিকাল ০৩:০০।জুলাইয়ে জার্মান ইকোনমিক সেন্টিমেন্ট ৬৩.৪ থেকে কমে ৫৯.৩ পয়েন্ট এসেছিল। প্রত্যাশা করা হচ্ছে, আগস্টে ৫৫.০ পয়েন্ট আসতে পারে। ৩.Industrial Production বুধবার,বিকাল ০৩:০০। ইন্ডাস্ট্রীয়াল প্রডাকশন দুমাস খারাপ আসার পরবর্তীতে মে মাসে ১২.৪% বেড়েছিল।প্রত্যাশা করা হচ্ছে, জুনেও ডাবল ডিজিটের উন্নতি পরিলক্ষিত হতে পারে। যা ১০ দশমিক ১ শতাংশ হতে পারে। ৪.German Final CPI বৃহস্পতিবার,দুপুর ১২:০০। জুনে জার্মান সিপিআই -০.১% থেকে বেড়ে ০.৬% এসেছিল। প্রত্যাশা করা হচ্ছে, জুলাইয়ে -০.৫% আসতে পারে। ৫.Flash GDP শুক্রবার, দুপুর ১২:০০। গত প্রান্তীকে ইউরোজোন জিডিপি -১২.১% কমেছিল। প্রত্যাশা করা হচ্ছে,দ্বিতীয় প্রান্তীকেও একই ধরণের আসতে পারে। EURUSD প্রতিদিনের সাপোর্ট এবং রেজিস্ট্যান্স লাইনগুলো দেওয়া হলো EURUSD টেকনিক্যাল অ্যানালাইসিস আমরা ১.২১৭৪ রেজিস্ট্যান্স লেভেল থেকে শুরু করছি। পরবর্তী রেজিস্ট্যান্স লেভেল হতে পারে ১.২০০৪।পরবর্তীতে ১.১৯৩০ রেজিস্ট্যান্স হিসেবে কাজ করেছিল।গত সপ্তাহে পেয়ারটি ১.১৮৫০ রেজিস্ট্যান্সে টেস্ট করেছিল। পেয়ারটির বর্তমান সাপোর্ট লেভেল ১.১৭২৫। পরবর্তী সাপোর্ট হতে পারে ১.১৬৫০ এবং ১.১৫৭৩।মার্চের মাঝামাঝিতে ১.১৪৭০ সাপোর্ট হিসেবে কাজ করেছিল। শেষ কথা ফরেক্স বিশেষজ্ঞদের মতে, এ সপ্তাহে EURUSD পেয়ারটি নিরপেক্ষ অবস্থানে থাকতে পারে। গত দুসপ্তাহে পেয়ারটি ১.২০ প্রাইসের কাছাকাছি ট্রেডিং করেছে। তবে ১.২০ অতিক্রম করতে পারেনি। বর্তমানে মার্কিন ডলারের রিকভার পরিলক্ষিত হচ্ছে। যা মার্কিন ডলারের প্রাইসকে আরও বাড়িয়ে তুলতে পারে।
  20. Last week
  21. Date : 7th August 2020.FX Update – Ahead of NFP, USD finds a bid.The narrow trade-weighted USDIndex (DXY) posted a two-day high at 93.16, extending the rebound from the 27-month low seen yesterday at 92.53. EURUSD concurrently retreated to a 1.1819 low, which is a pip shy of yesterday’s low and 2 pips shy of making it a big figure correction from yesterday’s 27-month peak. Cable posted a two-day low at 1.3098, drawing back from the 1.3187 five-month peak seen Thursday following the warily upbeat BoE outlook. USDJPY continued to ply a narrow range (less than 15 pips) around the 105.50 mark. Both the Aussie and Kiwi Dollars corrected moderately as the US currency firmed. AUDUSD, after first edging out a high at 0.7243, which matches Wednesday’s 18-month peak, ebbed to a low at 0.7196. USDCAD lifted to a three-day high at 1.3372.Front-month USOil futures were soft for a second day, maintaining sub-$42.00 levels after posting a five-month high earlier in the week at $42.52. Gold prices corrected below $2,050.00 after printing a fresh nominal record high at $2,077.85. The ascent of gold has been a reflection of investor concerns over the risk of there being an eventual pop in inflation as a consequence of massive global fiscal stimulus efforts and massive global monetary uber-accommodation, although there has been scant sign of this happening thus far, with disinflation remaining in force and with much of the US yield curve and other sovereign benchmark yields either at or near record lows. In the mix is speculation that the Fed, and possibly other major central banks, may be amid a strategic shift to allow higher inflation.The US Department of Labor’s weekly initial jobless claims will be THE key data release from the US later today, while labor market reports from Canada and the United States will be closely watched by market participants. The median forecast of economists polled by Reuters is for the Non-Farm Payroll to rise by 1,600,000, following the big miss in ADP number of 167,000 on Wednesday and the better than expected Weekly Claims yesterday of 1,186,000 compared to expectations of 1,400,000. The range in the Reuters poll estimates varies from -280,000 to 3,500,000. On the other hand, Canada is expected to add 400,000 jobs with the Unemployment Rate slumping lower to 11% from 12.3%.Always trade with strict risk management. Your capital is the single most important aspect of your trading business.Please note that times displayed based on local time zone and are from time of writing this report.Click HERE to access the full HotForex Economic calendar.Want to learn to trade and analyse the markets? Join our webinars and get analysis and trading ideas combined with better understanding on how markets work. Click HERE to register for FREE!Click HERE to READ more Market news. Stuart Cowell Head Market Analyst HotForex Disclaimer: This material is provided as a general marketing communication for information purposes only and does not constitute an independent investment research. Nothing in this communication contains, or should be considered as containing, an investment advice or an investment recommendation or a solicitation for the purpose of buying or selling of any financial instrument. All information provided is gathered from reputable sources and any information containing an indication of past performance is not a guarantee or reliable indicator of future performance. Users acknowledge that any investment in FX and CFDs products is characterized by a certain degree of uncertainty and that any investment of this nature involves a high level of risk for which the users are solely responsible and liable. We assume no liability for any loss arising from any investment made based on the information provided in this communication. This communication must not be reproduced or further distributed without our prior written permission.
  22. ট্রাম্প চীনা কোম্পানি টিকটকের বিরুদ্ধে নিষেধাজ্ঞা দেওয়ার পরবর্তীতে মার্কিন ডলার শক্তিশালী হতে শুরু করেছে। বিনিয়োগকারীদের বর্তমান নজর জুলাই মাসের নন-ফার্ম পেরোলস রিপোর্টের দিকে। যুক্তরাষ্ট্রে করোনাভাইরাসের প্রভাকে ইকোনমিতে স্থবিরতা বিরাজ করছে। এর মধ্যে মার্কিন নন-ফার্ম পেরোলস রিপোর্ট কি আসবে এ নিয়ে বিনিয়োগকারীদের মধ্যে উদ্ধিগ্নতা কাজ করছে। Sino-American relations মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল ট্রাম্প ভিডিও-শেয়ারিং অ্যাপ টিকটকের মালিকানাধীন চীনা সংস্থা বাইটড্যান্সে সাথে লেনদেন নিষদ্ধ করার একটি নির্বাহী আদেশে স্বাক্ষর করেন।যা মার্কিন ডলারের প্রাইস বাড়ার ক্ষেত্রে সহায়তা করছে। NFP uncertainty সন্ধ্যা ০৬:৩০ মিনিটে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের জুলাই মাসের নন-ফার্ম পেরোলস রিপোর্ট প্রকাশ করা হবে।প্রত্যাশা করা হচ্ছে,জুলাই মাসে ১.৬ মিলিয়ন আসতে পারে। জুলাই মাসে বেকারত্বের হার ১১ দশমিক ১ শতাংশ থেকে কমে ১০ দশমিক ৫ শতাংশে আসতে পারে। GBPUSD GBPUSD পেয়ারটি ১.৩২ প্রাইসের কাছাকাছি আসলেও বর্তমানে ১.৩১ প্রাইসের উপরে অবস্থান করছে। মার্কিন ডাটাকে প্রকাশের পরবর্তীতে পেয়ারটির প্রাইস বাড়বে নাকি কমবে সেটা দেখার বিষয়। EURUSD ইউরো/ডলার পেয়ারটি গতকালের ১.১৯ প্রাইস থেকে নেমে ১.১৮ প্রাইসের সামন্য উপরে অবস্থান করছে।তবে মার্কিন ডাটা রিলিজের পরবর্তীতে পেয়ারটির প্রাইস বাড়ার সম্ভাবনা রয়েছে। Canada সন্ধ্যা ৬:৩০ মিনিটে কানাডার বেকারত্বের হার রিপোর্ট প্রকাশ করা হবে। জুন মাসে বেকারত্বের হার ১২ দশমিক ৩ শতাংশ থাকলেও প্রত্যাশা করা হচ্ছে, জুলাইয়ে কমে ১১ শতাংশ আসতে পারে। যা কানাডিয়ান ডলারের জন্য ইতিবাচক হতে পারে।
  23. Trade to Ride Promo - Winners https://www.xm.com/bn/trade-to-ride-xm-forex-promotion-winners-84888
  24. EURUSD সিগন্যাল ৬০ মিনিট (১ঘন্টার) চার্টের সিগনাল (পরবর্তী ৩ দিন) মার্কেটে অনিশ্চয়তা বিরাজ করছে। ট্রেন্ডগুলো খুব তাড়াতাড়ি পরিবর্তন হচ্ছে। মার্কেট শান্ত হওয়া পর্যন্ত অপেক্ষা করা ভাল হবে। ট্রেন্ডের ধরণ : মার্কেটে অনিশ্চয়তা বিরাজ করছে। সাপোর্ট লেভেল : ১.১৮২০,১.১৭৭০,১.১৭০০ রেজিস্ট্যান্স লেভেল : ১.১৯০০,১.১৯৪০,১.২০০০ ২৪০ মিনিট (৪ ঘন্টার ) চার্টের সিগনাল ( পরবর্তী ৩ সপ্তাহ ) মার্কেট আপট্রেন্ডে রয়েছে। আমরা বাই পজিশন নেওয়ার জন্য ১.১৯২০ রেজিস্ট্যান্স লেভেলে কিছু সিগন্যালের অপেক্ষা করছি। পেয়ারটি ১.১৬৯০ প্রাইস ভেঙ্গে নিচে নামলে বুলিশ ট্রেন্ড পরিবর্তন হতে পারে। ট্রেন্ডের ধরণ : মার্কেট ঊর্ধ্বমূখী শক্তিশালী। সাপোর্ট লেভেল : ১.১৬৯০,১.১৫৭০,১.১৩৬০ রেজিস্ট্যান্স লেভেল : ১.১৯২০,১.২০৪০,১.২২৬০ বাই এন্ট্রি: ১.১৯২০ স্টপ লস: ১.১৬৯০ ট্রেডের সম্ভাবনা: মাঝারি টেক প্রফিট: ১.২০৪০,১.২২৬০ GBPUSD সিগন্যাল ৬০ মিনিট ( ১ঘন্টার ) চার্টের সিগনাল (পরবর্তী ৩ দিন ) মার্কেট ১.৩০৯০ সাপোর্ট লেভেলে টেস্টিং করছে। আমরা বাই পজিশন নেওয়ার জন্য কিছু সিগন্যালের অপেক্ষা করছি বা ১.৩১৯০ রেজিস্ট্যান্স লেভেলে ব্রেক হতে পারে। পরবর্তী গুরুত্বপূর্ণ সাপোর্ট লেভেল ১.৩০৪০। ট্রেন্ডের ধরণ : মার্কেট ঊর্ধ্বমূখী শক্তিশালী। সাপোর্ট লেভেল : ১.৩০৯০,১.৩০৪০,১.২৯৭০ রেজিস্ট্যান্স লেভেল : ১.৩১৯০,১.৩২৪০,১.৩৩২০ টেক প্রফিট: ১.৩২৪০,১.৩৩৮০ ২৪০ মিনিট (৪ ঘন্টার ) চার্টের সিগনাল ( পরবর্তী ৩ সপ্তাহ ) মার্কেটের ১.৩১০০ বাই এন্ট্রি এবং ১.৩১০০ সাপোর্ট লেভেল দেওয়া হয়েছে।পেয়ারটির ১.২৯৮০ প্রাইস ভেঙ্গে নিচে নামলে বুলিশ ট্রেন্ড পরিবর্তন হতে পারে। সেক্ষেত্রে সেল পজিশন নেওয়া যেতে পারে। ট্রেন্ডের ধরণ: মার্কেট ঊর্ধ্বমূখী শক্তিশালী। সাপোর্ট লেভেল: ১.২৯৮০,১.২৮৮০,১.২৭৪০ রেজিস্ট্যান্স লেভেল: ১.৩১৯০,১.৩২৮০,১.৩৪৮০ বাই এন্ট্রি: ১.৩১০০ স্টপ লস: ১.২৯৮০ ট্রেডের সম্ভাবনা: হাই ট্রেড প্রফিট: ১.৩২৮০,১.৩৪৮০
  25. গতকাল EURUSD পেয়ারটির প্রাইস বাড়লেও আজকের সেশনে কমতে শুরু করেছে। তবে ডাউনট্রেন্ড কতটুকু স্থায়ী হবে সেটা দেখার বিষয়। আজকের সেশনে পেয়ারটি ১.১৮৭৪ প্রাইসে ওপেন হলেও বর্তমানে ১.১৮৩৫ প্রাইসের কাছাকাছি অবস্থান করছে। হঠাৎ মার্কিন ডলারের প্রাইস বাড়ার পিছনে চীন-যুক্তরাষ্ট্রের উত্তেজনা কাজ করছে। মার্কিন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প ভিডিও-শেয়ারি অ্যাপ টিকটকের মালিকানাধীন চীনা সংস্থা বাইটড্যান্সের সাথে লেনদেন নিষিদ্ব করার একটি নির্বাহী আদেশে স্বাক্ষর করেনে। এছাড়াও ট্রাম্প বলেছেন, আমাদের জাতীয় সুরক্ষার জন্য টিকটকের মালিকদের বিরুদ্ধে অবশ্যই আক্রমাণাত্মক পদক্ষেপ নিতে হবে।ট্রাম্পের এ ধরনের বক্তব্য এবং স্বাক্ষরের পরবর্তীতে মার্কিন ডলারের প্রাইস বাড়তে শুরু করেছে। ট্রাম্প পদক্ষেপটি এমন সময় নিয়েছে যখন ওয়াশিংটন এবং বেইজিং হংকংয়ের করোনাভাইরাস এবং গণতন্ত্রের মতো বেশ কয়েকটি ইস্যু নিয়ে ইতিমধ্যে বিতর্কে জড়িয়ে রয়েছে। চীন মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রতি আক্রমাত্মক পদক্ষেপ নেবেন কিনা সেটা দেখার বিষয়।প্রত্যাশা করা হচ্ছে, বর্তমানে EURUSD পেয়ারটির প্রাইস বাড়লেও পরবর্তীতে কমতে পারে। সুতরাং ট্রেডারদের মার্কেট পরিস্থিতি বিবেচনা করে বাই নেওয়া প্রয়োজন।
  26. EURCHF পেয়ারটি সপ্তাহের সর্বোচ্চ প্রাইসের কাছাকাছি গেলেও বর্তমানে বিয়ারিশ প্যাটার্ন তৈরি করছে। EURCHF পেয়ারটি ১.০৮১০ প্রাইসে ট্রেডিং করছে। পেয়ারটি চলতি সপ্তাহে ১.০৮৩৭ প্রাইসে উঠেছিল। যা আগস্ট মাসের সর্বোচ্চ প্রাইস। ইন্ডিকেটর MACD অনুযায়ী পেয়ারটি আপট্রেন্ড অব্যাহত রেখে ১.০৮৪০ রেজিস্ট্যান্স লেভেলে আসতে পারে। পেয়ারটির পরবর্তীতে ১.০৯১৫ রেজিস্ট্যান্স লেভেলে আসার সম্ভাবনা রয়েছে। যা জুন মাসের সর্বোচ্চ প্রাইসের কাছাকাছি হবে। অপরদিকে পেয়ারটির বর্তমান সাপোর্ট লেভেল ১.০৭৮৫ এবং পরবর্তী সাপোর্ট লেভেল হতে পারে ১.০৭৩০। ২০০ বার-EMA অনুযায়ী পেয়ারটির ১.০৭৩০ সাপোর্ট লেভেলে আসতে পারে। EURCHF চার ঘন্টার চার্ট
  27. ইন্সটাফরেক্স কনটেষ্টের নিয়মিত পর্বের ফলাফল ঘোষনা করা হয়েছে! এবারের পর্বে যারা ইন্সটাফরেক্স এর নিয়মিত পর্বের কনটেষ্ট ও ক্যাম্পেইনের বিজয়ী হয়েছে আমরা তাদের ঘোষণা করে আনন্দিত: চান্সি ডিপোজিট, ইন্সটাফরেক্স স্নাইপার, ওয়ান মিলিয়ন অপশন , এফএক্স ওয়ান র‌্যালি, লাকি ট্রেডার, রিয়েল স্কাল্পিং এবং গ্রেট রেস। আমরা এই প্রতিযোগিতার বিজয়ীদের অভিনন্দন জানিয়ে নতুনদের বিজয়ী হবার জন্য স্বাগত জানাই এবং পরবর্তী পর্বের জন্য সকল অংশগ্রহণকারীদের সুন্দর একটি ভাগ্যের আশা করছি! চ্যান্সি ডিপোজিটঃ প্রতিমাসেই এই প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়।আর গত মাসে সিস্টেম থেকে এলোমেলোভাবে নম্বর নিয়ে ভাগ্যবান বিজয়ী নির্ধারিত করা হয়েছে। গত পর্বে রাশিয়া থেকে দিমিত্রি নিকোলাভিচ নাজিমভ এবং ইউক্রেনের ওলেগ সার্জিভিচ নেদিন এই পুরষ্কার লাভ করেছন। আমরা বিজয়ীদের অভিনন্দন জানাই এবং তাদের নতুন কোন বিজয়ীর প্রত্যাশা করছি! এই ক্যাম্পেইননের শর্ত খুবই সহজ। আপনার অ্যকাউন্টে শুধুমাত্র একটা নির্দিষ্ট পরিমাণ অর্থ ডিপোজিট করতে হবে এবং রুটিন মাফিক আপনাদের ট্রেডিং চালিয়ে যাবেন। যাইহোক, আগামীবারের ভাগ্য আপনার প্রতিও হাসতে পারে এবং আপনিও একজন ভাগ্যবান বিজয়ী হয়ে উঠতে পারেন! প্রতি মাসে ড্র এর পরিমাণ পরিবর্তিত হয়, সুতরাং একটি ভাল পরিমাণ অর্থ পাওয়ার জন্য আপনি এই সুযোগটি হয়তো হাতছাড়া করবেন না। ইন্সটাফরেক্স স্নাইপারঃ সবচেয়ে দ্রুত এবং দক্ষ ট্রেডাররা ইন্সটাফরেক্স স্নাইপার প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণ করে থাকে। গত পর্বে তিউনিসিয়া থেকে আহমেদ আলবাউচি সবাইকে ছাড়িয়ে সেরা ফলাফল করে বিজয়ী হয়েছেন। আমরা এই বিজয়ীকে অভিনন্দন জানাই। পরবর্তি পর্বে নিবন্ধন করতে দেরী না করে এখনি নিবন্ধন করুন! ইন্সটাফরেক্স স্নাইপার প্রতিযোগিতাটি সাপ্তাহিক যা শুক্রবার থেকে সোমবার 00:00 থেকে 23:50 সময় পর্যন্ত হয়ে থাকে। ওয়ান মিলিয়ন অপশনঃ ইন্সটাফরেক্সে ব্রেকারে ওয়ান মিলিয়ন কনটেস্টটি সবচেয়ে বেশি জনপ্রিয়। তাই অসংখ্য ট্রেডার এই কনটেস্ট এ অংশগ্রহন করে, যার মধ্যে এবারের পর্বে ইউক্রেন থেকে ইয়ারোস্লাভ ভ্লাদিমিরোভিচ সলোভিয়েভ প্রত্যেকটি ধাপে অসংখ্য অংশগ্রহণকারীকে পেছেনে ফেলে সেরা অপশন ট্রেডারের মুকুট পেয়েছেন। আমরা তাকে অভিনন্দন জানাচ্ছি এবং তার সৌভাগ্য কামনা করছি। এছাড়াও আপনাদের মনে করে দিতে চাই প্রতি সপ্তাহের শুরু থেকে সোমবার পর্যন্ত এই প্রতিযোগিতাটি 00:00 থেকে 23:50 সময় হয়ে থাকে । এফএক্স ওয়ান র‌্যালি সম্প্রতি ইউক্রেনের ব্যবসায়ী আন্দ্রেজ সের্গেভিচ চেরঞ্জাভস্কিভ এবং ভ্লাদিমির আনাতোলিয়েভিচ সুসানভ তাদের সেরা ট্রেডিং পারফরম্যান্স দেখিয়ে সাম্প্রতিক পর্বে বিজয়ী হয়েছেন। ইন্সটাফরেক্স এই বিজয়ীকে তার চমৎকার নৈপুন্য দেখানোর জন্য অভিনন্দন জানায় এবং FX-1 র‌্যালি পরবর্তী ধাপে জন্য তার সাফল্য আশা করছে। যদি আপনিও এই রোমাঞ্চপূর্ণ রেসেও অংশ নিতে চান, তাহলে FX-1 র‌্যালির নতুন পর্বে অংশগ্রহন করুন! আপনি পরবর্তি FX-1 র‌্যালিতে নিবন্ধন করতে পারেন যা প্রতি শুক্রবার ০০:০০ সময় থেকে শুরু করে সোমাবার ২৩:৫৯ সময় পর্যন্ত হয়ে থাকে। যা এক ঘন্টা আগেও রেজিস্ট্রেশন করা যায়। লাকি ট্রেডার আত্মবিশ্বাস, দূরদর্শিতা এবং মনোযোগ হল লাকি ট্রেডার ম্যারাথন জয় করার চাবিকাঠি। যদি আপনি দুই সপ্তাহ ব্যাপী কোন ট্রেড পুরোপুরি নিখুঁতভাবে পরিচালনা করেন তাহলে আপনি পরবর্তী লাকি ট্রেডার বিজয়ী হতে পারবেন, যা সম্প্রতি রাশিয়া থেকে ওলেগ বোরিসোভিচ ঝারকভ এটা করে দেখিয়েছেন। তিনি তার চমৎকার ট্রেডিং ফর্ম দেখিয়েছেন এবং শত শত প্রতিযোগীদের মধ্যে সেরা ফলাফল অর্জন করেছেন। সেজন্য আমরা তাকে নতুন লাকি ট্রেডার এর বিজয়ী হিসাবে আন্তরিকভাবে অভিনন্দন জানাচ্ছি এবং পরবর্তি ধাপের প্রতিযোগীতায় অংশগ্রহণের জন্য আমরা অন্যদের আমন্ত্রণ জানাচ্ছি। এই লাকি ট্রেডার প্রতিযোগিতাটি ৩ই আগষ্ট থেকে শুরু হয়ে ১৪ই আগষ্ট ২০২০ পর্যন্ত চলবে। রিয়েল স্কালপিংঃ রিয়েল স্কালপিং কনটেস্ট এ অংগ্রহনের জন্য তীক্ষ্ণ এবং সতর্ক ট্রেডার হতে যা অল্প সময়ে ট্রেডিং সিদ্ধান্ত নেবার জন্য অনেক বেশি কঠিন এবং বিভিন্ন কৌশল অবলম্বন করে মনোযোগের সাথে করতে হয়। এতে কোন ভুল করলে বিজয়ী হবার সম্ভাবনা নেই বললেই চলে। এবারের পর্বে রাশিয়া থেকে ওলেগ ইগোরেভিচ জাইকোভ এগিয়ে গিয়ে এই বৈশিষ্ট্যগুলো দেখাতে পেরেছেন এবং উজ্জ্বল স্ক্যাল্পিং দক্ষতার পরিচয় দিয়েছেন। ইন্সটাফরেক্স তাকে অভিনন্দন জানাচ্ছে এবং পরবর্তি পর্বে অংশগ্রহণের জন্য অন্যদের আমন্ত্রণ জানাচ্ছে। যারা এই চ্যালেঞ্জ গ্রহন করতে চান, অনুগ্রহ করে সাম্প্রতিক রিয়েল স্কালপিং কনটেস্ট এর জন্য নিবন্ধন করুন। পরবর্তী রিয়েল স্কালপিং কনটেস্ট আগামী ৩ই আগষ্ট থেকে শুরু হয়ে ২৮শে আগষ্ট ২০২০ পর্যন্ত চলবে। ইন্সটাফরেক্স গ্রেট রেসঃ এই প্রতিযোগিতায় অংশ নিতে, আপনাকে প্রতিটি পর্যায়ে একটি নতুন ডেমো অ্যাকাউন্ট নিবন্ধন করতে হবে। আর্থিক পুরষ্কার ছাড়াও, মঞ্চের বিজয়ী বোনাস পয়েন্ট পাবেন যা প্রতিযোগিতার শেষ পর্যায়ে ব্যবহার করতে পারবে। সম্প্রতি ইন্দোনেশিয়া থেকে হেন্ডি মার্থিন পূর্ব ইন্সটাফরেক্স গ্রেট রেস এর বিজয়ী হয়েছেন। আমরা এই পুরস্কারের মালিককে অভিনন্দন জানাচ্ছি এবং অন্যদের এই প্রতিযোগীয় অংশগ্রহনের জন্য আমন্ত্রণ জানাচ্ছি, কারণ এই রেস এর পথ অনেক দীর্ঘ, যদিও সবার জন্যই পুরষ্কারটি যথেষ্ট! আপনি পরবর্তি গ্রেট রেস এ নিবন্ধন করতে পারেন যা গত ২০ জুলাই থেকে ২০শে আগষ্ট শেষ হয়ে পরবর্তি পর্ব ২০শে আগষ্ট শুরু হয়ে ২৩শে সেপ্টেম্বরশেষ হবে। বিস্তারিত: https://cutt.ly/UdDzOAt
  28. Date : 6th August 2020.FX Update – August 6 – USD to new lows.Trading Leveraged Products is riskyThe USDIndex edged out a fresh 27-month low at 92.50, continuing what is a fourth consecutive week of decline and a fourth straight month of decline, dropping by just over 10% from the early March peak. The loss of confidence in the US currency has partly been reflected in the ongoing rally in gold, which has remained buoyant after posting a fresh record nominal high at $2,055.00 yesterday.A deal on the US fiscal package remains elusive, though President Trump’s threat to take executive action to cut payroll taxes managed to keep investor spirits up, along with the above-forecast services ISM out of the US, and more positive news from the candidate vaccine front for the SARS Cov-2 coronavirus. The good vibe across equity markets flagged somewhat as the Asia session wore on, however. The MSCI Asia-Pacific equity index printed a six-and-a-half-month-high during early trading before turning lower to near net unchanged levels. S&P 500 futures, while off highs, still show moderate gains, while the European markets have opened lower to start the day.AUDUSD saw a downward flurry after the Australian government lifted its unemployment forecast while forecasting growth would be trimmed by 2.5 percentage points as a consequence of its own lockdown measures (having chosen the sledgehammer approach, similar to many other nations, despite the standout success of the much less costly Swedish approach, which has refrained from lockdown and masks and has performed near the same as most other European countries during the pandemic, with its ICU and mortality numbers having now dropped to near nothing). AUDUSD dipped to a 0.7184 low, which is nearly 60 pips below yesterday’s peak.Elsewhere, EURUSD edged out a new 27-month high at 1.1917, and Cable a five-month peak at 1.3182. USDJPY idled in the mid 105.00s, above yesterday’s six-day low at 105.32. USDCAD settled above the six-month low seen yesterday at 1.3231. Front-month USOIL crude futures settled in the lower $42.00s, below Wednesday’s five-month peak at $43.52.Always trade with strict risk management. Your capital is the single most important aspect of your trading business.Please note that times displayed based on local time zone and are from time of writing this report.Click HERE to access the full HotForex Economic calendar.Want to learn to trade and analyse the markets? Join our webinars and get analysis and trading ideas combined with better understanding on how markets work. Click HERE to register for FREE!Click HERE to READ more Market news. Stuart Cowell Head Market Analyst HotForex Disclaimer: This material is provided as a general marketing communication for information purposes only and does not constitute an independent investment research. Nothing in this communication contains, or should be considered as containing, an investment advice or an investment recommendation or a solicitation for the purpose of buying or selling of any financial instrument. All information provided is gathered from reputable sources and any information containing an indication of past performance is not a guarantee or reliable indicator of future performance. Users acknowledge that any investment in FX and CFDs products is characterized by a certain degree of uncertainty and that any investment of this nature involves a high level of risk for which the users are solely responsible and liable. We assume no liability for any loss arising from any investment made based on the information provided in this communication. This communication must not be reproduced or further distributed without our prior written permission.
  29. ফরেক্স বিশেষজ্ঞ যোহয়ে এলাম চার ঘন্টার চার্ট পর্যালোচনা করে বলেন GBPUSD পেয়ারটি খুব তাড়াড়ি মার্চ মাসের সর্বোচ্চ প্রাইস ১.৩২ দিকে যাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। চার ঘন্টার চার্টে RSI ইন্ডিকেটর অনুযায়ী দেখা যাচ্ছে,পেয়ারটি ওভারসোল্ড কন্ডিশন ৭০ লেভেলের নিচে অবস্থান করছে।প্রত্যাশা করা হচ্ছে, পেয়ারটির প্রাইস আরও বাড়তে পারে। এছাড়াও পেয়ারটি ৫০,১০০ এবং ২০০ দিনের সিম্পল মুভিং অ্যাভারেজের উপরে অবস্থান করছে। যা পেয়ারটির আপট্রেন্ডের সম্ভাবনাকে শক্তিশালী করেছে বর্তমানে পেয়ারটি ১.৩১৮৩ ‍প্রাইস অতিক্রমের পরবর্তীতে মার্চ মাসের সর্বোচ্চ প্রাইস ১.৩২ দিকে ধাবিত হচ্ছে। যোহয়ে এলামের মতে,পেয়ারটির পরবর্তী রেজিস্ট্যান্স হতে পারে ১.৩২৭০ এবং ১.৩৩২০। অপরদিকে পেয়ারটির বর্তমান সাপোর্ট লেভেল ১.৩১১০। পেয়ারটি ১.৩১১০ সাপোর্ট অতিক্রমের পরবর্তী ১.৩০৫৫ সাপোর্টে আসতে পারে। যোহয়ে এলামের মতে, পেয়ারটির ডাউনট্রেন্ড শক্তিশালী হলে ১.২৯৮০ এবং ১.২৯০৫ সাপোর্ট লেভেলে আসতে পারে।
  1. Load more activity
×
×
  • Create New...